ঢাকা ০৬:৫৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
মনোহরদীতে নানা আয়োজনে বর্ষবরণ উৎসব পালিত হয়েছে ঠাকুরগাঁও। রুহিয়া ঐতিহ্যবাহী বৈশাখী মেলা করোনাভাইরাস এর কারণে বন্ধ থাকায় আবারও পাঁচ বছর পর ১০ দিনব্যাপী বৈশাখী মেলার আয়োজন করা হয়েছে রানীশংকৈলে নানা আয়োজনে বাংলা নববর্ষ উদযাপিত রায়পুরে পহেলা বৈশাখে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা নবাবগঞ্জে বাংলা নববর্ষ ১৪৩১ পালিত ঘাটাইলে ব্যবসায়ীর হাত-পায়ের রগ কেটে সর্বস্ব লুট টঙ্গীতে চাঁদা না পেয়ে ব্যবসায়ীর উপর হামলা: তদন্তে গিয়ে সিসিটিভি আবদার করলো পুলিশ! আনোয়ারা বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ে ঈদ পূর্ণমিলনী ও মত বিনিময় সভা মোংলায় নিরুদ্দেশ মোতালেব জমাদ্দারের নাতিদের আকিকা অনুষ্ঠানে হাজারও লোকের ভিড় বহিষ্কার মোঃ রবিউল ইসলাম রবি কে দৈনিক সময়ের কন্ঠ পত্রিকা ও অনলাইন থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে

হত্যাকান্ডের দায় সেজান গ্রুপকে নিতে হবে

মিরপুর প্রতিনিধিঃ-মুছাওবীর ইসলাম মিশু

 

বেলকুচি সাবেক ছাত্রলীগ ফোরামের অন্যতম সদস্য মোঃ আশরাফুর রহমান (তপন) বলেছেন, রূপগঞ্জের সেজান জুস কারখানার হত্যাকান্ডের দায় সেজান গ্রুপকে নিতে হবে।

 

সেজান গ্রুপ এর উচিৎ  নিহতের পরিবারকে ৫০ লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপুরণ দিতে হবে। আহতদের চিকিৎসা ও পুণর্বাসন করতে হবে।

 

গত ১১ জুলাই  রবিবার সেজান জুস কারখানার আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ভবন পরিদর্শন শেষে তিনি এ কথা গুলো বলেন। তিনি বলেন, এমন ঘটনা একটা নয়, প্রতিদিনই এমন ঘটনা ঘটছে। ন্যায় নীতি না থাকলে ইন্ডাস্ট্রিয়াল এর নিয়ম  না মানলে এ দুর্ঘটনা থামবে না। এটা সেজান গ্রুপ এর ব্যর্থতা আমাদের সবার জন্য দুঃখ আছে, জাতীর জন্য দুর্ভাগ্য আছে। সেজান গ্রুপ এর উচিৎ ঘটনাস্থলের অসহায় মানুষকে সহায়তা করা।

 

এসময় উপস্থিত ছিলেন, বেলকুচি সাবেক ছাত্রলীগ ফোরামের অন্যতম সদস্য আশরাফুর রহমান( তপন), সাধারন জনগনের বন্ধু, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকী, গণসংহতি আন্দোলনের নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সমন্বয়ক তরিকুল ইসলাম সুজন, ব্যারিষ্টার আব্দুল কাইয়ুম, পপি রানী সরকার প্রমুখ।

আরো খবর.......

জনপ্রিয় সংবাদ

মনোহরদীতে নানা আয়োজনে বর্ষবরণ উৎসব পালিত হয়েছে

হত্যাকান্ডের দায় সেজান গ্রুপকে নিতে হবে

আপডেট টাইম : ০৫:৪৯:২৭ পূর্বাহ্ণ, সোমবার, ১২ জুলাই ২০২১

মিরপুর প্রতিনিধিঃ-মুছাওবীর ইসলাম মিশু

 

বেলকুচি সাবেক ছাত্রলীগ ফোরামের অন্যতম সদস্য মোঃ আশরাফুর রহমান (তপন) বলেছেন, রূপগঞ্জের সেজান জুস কারখানার হত্যাকান্ডের দায় সেজান গ্রুপকে নিতে হবে।

 

সেজান গ্রুপ এর উচিৎ  নিহতের পরিবারকে ৫০ লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপুরণ দিতে হবে। আহতদের চিকিৎসা ও পুণর্বাসন করতে হবে।

 

গত ১১ জুলাই  রবিবার সেজান জুস কারখানার আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ভবন পরিদর্শন শেষে তিনি এ কথা গুলো বলেন। তিনি বলেন, এমন ঘটনা একটা নয়, প্রতিদিনই এমন ঘটনা ঘটছে। ন্যায় নীতি না থাকলে ইন্ডাস্ট্রিয়াল এর নিয়ম  না মানলে এ দুর্ঘটনা থামবে না। এটা সেজান গ্রুপ এর ব্যর্থতা আমাদের সবার জন্য দুঃখ আছে, জাতীর জন্য দুর্ভাগ্য আছে। সেজান গ্রুপ এর উচিৎ ঘটনাস্থলের অসহায় মানুষকে সহায়তা করা।

 

এসময় উপস্থিত ছিলেন, বেলকুচি সাবেক ছাত্রলীগ ফোরামের অন্যতম সদস্য আশরাফুর রহমান( তপন), সাধারন জনগনের বন্ধু, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকী, গণসংহতি আন্দোলনের নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সমন্বয়ক তরিকুল ইসলাম সুজন, ব্যারিষ্টার আব্দুল কাইয়ুম, পপি রানী সরকার প্রমুখ।