ঢাকা ০৭:৪৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
ইংল্যান্ড বিএনপি’র সভাপতির সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন পিসা বিএনপি’র আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক পারভেজ মোশারফ কোস্টগার্ড কর্তৃক বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা প্রদান কিশোরগঞ্জে দৈনিক নাগরিক ভাবনার ৪র্থ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত যুব উন্নয়ন থেকে দর্জি বিজ্ঞান প্রশিক্ষণ নিয়ে জামালপুরের যুব মহিলারা আত্ম নির্ভরশীল এমপি হবার শিক্ষাগত যোগ্যতার প্রতিপাদ্য নিয়ে ময়মনসিংহ রেলওয়ে ষ্টেশনে চাঞ্চল্যকর খুনের প্রধান আসামী মোহাম্মদ আলী গ্রেফতার ইপিজেড থানা পুলিশের বিশেষ অভিযানে(দুইশত চার) পিস ইয়াবা ট্যাবলেট সহ এক মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার পাকুন্দিয়ায় ৬ষ্ট বার্ষিকী ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্টিত টঙ্গীতে কিশোর গ্যাং লিডার মাইদুল গ্রেফতার তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে অস্ট্রিয়াতে দুই বাংলাদেশী প্রবাসীর মধ্যে মারামারি গ্রেফতার এক

হামিদ কারজাই, আব্দুল্লাহ আব্দুল্লাহ সব চেয়ে বড় ক্রিমিনাল

  • সময়ের কন্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট টাইম : ০২:২৩:৩৩ অপরাহ্ণ, বৃহস্পতিবার, ১৮ নভেম্বর ২০২১
  • ১৫৭ ০.০০০ বার পাঠক

আন্তর্জাতিক রিপোর্ট।।

ইসলামিক আমিরাত অব আফগানিস্তানের একজন মন্ত্রী বলেছেন, পশ্চিমারা চায় আফগানিস্তানে দুর্নীতিবাজ সরকার গঠন করা হোক। এ কারণেই তারা অন্তর্ভুক্তিমূলক সরকার গঠন করার আহ্বান জানাচ্ছে।

তালেবান সরকারের নীতি নৈতিকতা বিষয়ক মন্ত্রী মোহাম্মদ খালিদ হানাফি এই মন্তব্য করেছেন।

আফগানিস্তানের স্থানীয় তোলো নিউজের খবরে বলা হয়েছে, তালেবানের নীতি-নৈতিকতা বিষয়ক মন্ত্রী মোহাম্মদ খালিদ হানাফি আফগানিস্তানের শীর্ষ কয়েকজন নেতাকে ক্রিমিনাল (দুর্বত্ত) হিসেবে সম্বোধন করেছেন। দেশের মানুষের নিরাপত্তার ঘাটতি হবেনা বোঝাতে গিয়ে ইসলামিক আমিরাতের এই মন্ত্রী বলেন, হামিদ কারজাইয়ের থেকে বড় কোনো অপরাধী আছে? আব্দুল্লাহ আব্দুল্লাহর থেকে বড় কোনো অপরাধী আছে? তারা যদি ক্ষমা পায়, তাহলে আফগানিস্তানের সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তার কী আছে?

হামিদ কারজাই আফগানিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্ট, আব্দুল্লাহ আব্দুল্লাহ আফগানিস্তানের শক্তিশালী নেতা। তিনি দেশটির সাবেক প্রধান নির্বাহী এবং কাতার ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় তালেবানের সঙ্গে শান্তি আলোচনার প্রধান শান্তি আলোচক ছিলেন।

গত ১৫ আগস্ট তালেবান আফগানিস্তানের ক্ষমতা দখল করে। তারা আশরাফ গনি সরকারের অধীনে কাজ করা সকল কর্মকর্তাসহ নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের সাধারণ ক্ষমা ঘোষণা করেন।

ক্ষমতা দখলের দুই সপ্তাহ পর তালেবান অন্তর্বর্তীকালীন সরকার গঠন করে। কিন্তু এই সরকারে দেশটির সকল অংশের নেতৃত্বকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়নি অভিযোগ তুলে পশ্চিমাসহ কোনো দেশই তালেবান সরকারকে স্বীকৃতি দেয়নি। উপরন্তু আফগানিস্তানে বিদ্যমান আন্তর্জাতিক জঙ্গি গোষ্ঠী আইএস’র খোরাশান শাখা বারবার হামলা চালিয়ে দেশটির নিরাপত্তা ব্যবস্থা অস্থিতিশীল করে তুলছে।

এসব প্রেক্ষাপটে তালেবান সরকারের নীতি-নৈতিকতা বিষয়ক মন্ত্রী ওই মন্তব্যগুলো করেন। তবে তিনি যাদের লক্ষ্য করে এমন মন্তব্য করেছেন তারা পাল্টা কোনো মন্তব্য করেননি।

আরো খবর.......

জনপ্রিয় সংবাদ

ইংল্যান্ড বিএনপি’র সভাপতির সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন পিসা বিএনপি’র আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক পারভেজ মোশারফ

হামিদ কারজাই, আব্দুল্লাহ আব্দুল্লাহ সব চেয়ে বড় ক্রিমিনাল

আপডেট টাইম : ০২:২৩:৩৩ অপরাহ্ণ, বৃহস্পতিবার, ১৮ নভেম্বর ২০২১

আন্তর্জাতিক রিপোর্ট।।

ইসলামিক আমিরাত অব আফগানিস্তানের একজন মন্ত্রী বলেছেন, পশ্চিমারা চায় আফগানিস্তানে দুর্নীতিবাজ সরকার গঠন করা হোক। এ কারণেই তারা অন্তর্ভুক্তিমূলক সরকার গঠন করার আহ্বান জানাচ্ছে।

তালেবান সরকারের নীতি নৈতিকতা বিষয়ক মন্ত্রী মোহাম্মদ খালিদ হানাফি এই মন্তব্য করেছেন।

আফগানিস্তানের স্থানীয় তোলো নিউজের খবরে বলা হয়েছে, তালেবানের নীতি-নৈতিকতা বিষয়ক মন্ত্রী মোহাম্মদ খালিদ হানাফি আফগানিস্তানের শীর্ষ কয়েকজন নেতাকে ক্রিমিনাল (দুর্বত্ত) হিসেবে সম্বোধন করেছেন। দেশের মানুষের নিরাপত্তার ঘাটতি হবেনা বোঝাতে গিয়ে ইসলামিক আমিরাতের এই মন্ত্রী বলেন, হামিদ কারজাইয়ের থেকে বড় কোনো অপরাধী আছে? আব্দুল্লাহ আব্দুল্লাহর থেকে বড় কোনো অপরাধী আছে? তারা যদি ক্ষমা পায়, তাহলে আফগানিস্তানের সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তার কী আছে?

হামিদ কারজাই আফগানিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্ট, আব্দুল্লাহ আব্দুল্লাহ আফগানিস্তানের শক্তিশালী নেতা। তিনি দেশটির সাবেক প্রধান নির্বাহী এবং কাতার ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় তালেবানের সঙ্গে শান্তি আলোচনার প্রধান শান্তি আলোচক ছিলেন।

গত ১৫ আগস্ট তালেবান আফগানিস্তানের ক্ষমতা দখল করে। তারা আশরাফ গনি সরকারের অধীনে কাজ করা সকল কর্মকর্তাসহ নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের সাধারণ ক্ষমা ঘোষণা করেন।

ক্ষমতা দখলের দুই সপ্তাহ পর তালেবান অন্তর্বর্তীকালীন সরকার গঠন করে। কিন্তু এই সরকারে দেশটির সকল অংশের নেতৃত্বকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়নি অভিযোগ তুলে পশ্চিমাসহ কোনো দেশই তালেবান সরকারকে স্বীকৃতি দেয়নি। উপরন্তু আফগানিস্তানে বিদ্যমান আন্তর্জাতিক জঙ্গি গোষ্ঠী আইএস’র খোরাশান শাখা বারবার হামলা চালিয়ে দেশটির নিরাপত্তা ব্যবস্থা অস্থিতিশীল করে তুলছে।

এসব প্রেক্ষাপটে তালেবান সরকারের নীতি-নৈতিকতা বিষয়ক মন্ত্রী ওই মন্তব্যগুলো করেন। তবে তিনি যাদের লক্ষ্য করে এমন মন্তব্য করেছেন তারা পাল্টা কোনো মন্তব্য করেননি।