ঢাকা ০৪:৫৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
কোটা সংস্কারের পক্ষে সরকার নীতিগতভাবে একমত: আইনমন্ত্রী ঘোষণার পর মানছেন না কোটা আন্দোলনকারীরা আমার ভাইদের ফেরত দেওয়া হোক আগে রায়পুরে বালু উত্তোলনে ভাঙন আতঙ্ক সরকারের কাছ থেকে দৃশ্যমান পদক্ষেপ ও সমাধানের পথ তৈরির প্রত্যাশা করে বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলন শনির আখড়া-যাত্রাবাড়ী সড়কে চলছে সংঘর্ষ, যান চলালাচল অচল করে দিচ্ছেন ফেসবুক লাইভে এসে পদত্যাগের ঘোষণা ছাত্রলীগ নেতার উত্তরায় গুলিতে নর্দান বিশ্ববিদ্যালয়ের ২ শিক্ষার্থী নিহত কমপ্লিট শাটডাউন ঢাকার সঙ্গে সব জেলার যোগাযোগ বন্ধ, টার্মিনাল থেকে ছাড়ছে না কোনো বাস ফুলবাড়ীর দৌলতপুর ইউনিয়নে গরু চুরির হিড়িক দেশবাসীর প্রতি মির্জা ফখরুলের আহ্বান, শিক্ষার্থীদের পাশে দাঁড়ান অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঢাবি, ৬টার মধ্যে হল ছাড়ার নির্দেশ

সপ্তম শেনীর ছাত্রী কে ৯ মাসের গর্ভবতী কালিহাতী পৌর এলাকায়

সময়ের কন্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট টাইম : ০৬:২২:১৯ পূর্বাহ্ণ, বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১
  • / ৩০৫ ৫০০.০০০ বার পাঠক

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি :
টাঙ্গাইলের কালিহাতী পৌর এলাকায় ৯ মাসের গর্ভবতী সপ্তম শেনীর ছাত্রীকে সাড়ে ৪ লাখ টাকা বিনিময়ে প্রভাবশালী মহল গ্রামছাড়া করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। কালিহাতী পৌর সভার উত্তর বেতডোবা এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে।

স্থানীয়রা জানান, পৌরসভার প্রভাবশালী ষষ্টি পাল(৫০), রনি পালের ছেলে মিঠু পাল (২২) ও নিতাই পালের ছেলে প্রশান্ত পাল (২১) একই এলাকার সপ্তম শেনীর ছাত্রীকে জোর পুর্বক একা পেয়ে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের ফলে ১৩ বছরের শিশুটি ৯ মাসের গর্ভবতী হয়ে পড়েছে।

ঘটনাটি জানাজানি হওয়ার পর গত মঙ্গলবার রাতে বিষয়টি মীমাংসার জন্য স্থানীয় কাউন্সিলরের মাধ্যমে সাড়ে ৪ লাখ টাকা বিনিময়ে ওই গর্ভবতী সপ্তম শেনীর ছাত্রীকে গ্রামছেড়ে অন্যত্র স্থানে রাখার সিদ্ধান্ত দেন। স্থানীয়রা জানান, ওই ৯ মাসের গর্ভবতী শিশুটিকে বাচ্চা নষ্ট করার জন্য তাকে এলাকা ছাড়ে অন্যত্র এলাকায় রেখেছে। গর্ভবতী করার সময় ওই শিশুটিও দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলে মনে করেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে কালিহাতী পৌর সভার কাউন্সিলর অজয় কুমার লিটন দে বলেন, ‘ঘটনাটি শুনেছি তবে মীমাংসার বিষয়ে জানিনা। সংবাদ প্রকাশ না করার জন্য বলেন তিনি। ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছেন অভিযুক্ত ষষ্টি পাল, মিঠু পাল, প্রশান্ত পাল। তাদের বাড়িতে পাওয়া যায়নি। তবে ষষ্টি পালের স্ত্রী জানান, স্থানীয় মাতাব্বররা মীমাংসা করে দিয়েছে।এদিকে ৯ মাসের গর্ভবতী শিশুটিকে বাড়িতে গিয়ে তাকে পাওয়া যায়নি।

স্থানীয়রা জানান, তাকে অন্যত্র স্থানে লুকিয়ে রেখেছে বাচ্চা প্রসব করানের জন্য। কালিহাতী থানার ওসি মীর মোশারফ হোসেন বলেন, এ বিষয়ে কেউ অভিযোগ করেনি। এ বিষয়ে কালিহাতী থানা তদন্ত (ওসি) নজরুল ইসলাম বিস্তারিত খোঁজ নিতে ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা পাওয়া গেছে বলে জানান।

আরো খবর.......

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য

সপ্তম শেনীর ছাত্রী কে ৯ মাসের গর্ভবতী কালিহাতী পৌর এলাকায়

আপডেট টাইম : ০৬:২২:১৯ পূর্বাহ্ণ, বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি :
টাঙ্গাইলের কালিহাতী পৌর এলাকায় ৯ মাসের গর্ভবতী সপ্তম শেনীর ছাত্রীকে সাড়ে ৪ লাখ টাকা বিনিময়ে প্রভাবশালী মহল গ্রামছাড়া করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। কালিহাতী পৌর সভার উত্তর বেতডোবা এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে।

স্থানীয়রা জানান, পৌরসভার প্রভাবশালী ষষ্টি পাল(৫০), রনি পালের ছেলে মিঠু পাল (২২) ও নিতাই পালের ছেলে প্রশান্ত পাল (২১) একই এলাকার সপ্তম শেনীর ছাত্রীকে জোর পুর্বক একা পেয়ে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের ফলে ১৩ বছরের শিশুটি ৯ মাসের গর্ভবতী হয়ে পড়েছে।

ঘটনাটি জানাজানি হওয়ার পর গত মঙ্গলবার রাতে বিষয়টি মীমাংসার জন্য স্থানীয় কাউন্সিলরের মাধ্যমে সাড়ে ৪ লাখ টাকা বিনিময়ে ওই গর্ভবতী সপ্তম শেনীর ছাত্রীকে গ্রামছেড়ে অন্যত্র স্থানে রাখার সিদ্ধান্ত দেন। স্থানীয়রা জানান, ওই ৯ মাসের গর্ভবতী শিশুটিকে বাচ্চা নষ্ট করার জন্য তাকে এলাকা ছাড়ে অন্যত্র এলাকায় রেখেছে। গর্ভবতী করার সময় ওই শিশুটিও দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলে মনে করেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে কালিহাতী পৌর সভার কাউন্সিলর অজয় কুমার লিটন দে বলেন, ‘ঘটনাটি শুনেছি তবে মীমাংসার বিষয়ে জানিনা। সংবাদ প্রকাশ না করার জন্য বলেন তিনি। ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছেন অভিযুক্ত ষষ্টি পাল, মিঠু পাল, প্রশান্ত পাল। তাদের বাড়িতে পাওয়া যায়নি। তবে ষষ্টি পালের স্ত্রী জানান, স্থানীয় মাতাব্বররা মীমাংসা করে দিয়েছে।এদিকে ৯ মাসের গর্ভবতী শিশুটিকে বাড়িতে গিয়ে তাকে পাওয়া যায়নি।

স্থানীয়রা জানান, তাকে অন্যত্র স্থানে লুকিয়ে রেখেছে বাচ্চা প্রসব করানের জন্য। কালিহাতী থানার ওসি মীর মোশারফ হোসেন বলেন, এ বিষয়ে কেউ অভিযোগ করেনি। এ বিষয়ে কালিহাতী থানা তদন্ত (ওসি) নজরুল ইসলাম বিস্তারিত খোঁজ নিতে ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা পাওয়া গেছে বলে জানান।