ঢাকা ০৬:২৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::

বাজিতপুরে ৬ বছর পর নিজ ফিরলেন সংখ্যালগু পরিবার

  • সময়ের কন্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট টাইম : ১২:৪৫:৪৫ অপরাহ্ণ, শুক্রবার, ২৯ জানুয়ারি ২০২১
  • ২৮৭ ০.০০০ বার পাঠক

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি।।

কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর উপজেলার পিরিজপুর ইউনিয়নের গোথালিয়া গ্রামে জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে ২০১৫ সালের ২২ শে অক্টোবর একটি হত্যা কে কেন্দ্র করে হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়ি ঘর ভাংচুর ও লুটপাট হয় এবং এর পর থেকে একটি সংখ্যালুগু পরিবার তাদের পৈতৃক ভিটা-জায়গা ছেড়ে আসছে অন্যত্রে।

গত ২৭ জানুয়ারি ২১ ইং তারিখে স্থানীয় সংসদ সদস্য ও প্রশাসনের সহযোগিতায় নিজ বাড়িতে ফিরলেন সংখ্যালুগু  পরিবারঠি।

বাড়ি এসে ঐ পরিবারের প্রধান পরশ সন্ন্যাসী আমাদের জানান ২০১১ সালের ১ সেপ্টেম্বর আমাদের বাড়ি ঘর ভাংচুর লুটপাট করেন পরে স্থানীয় সংসদ সদস্য৷ মোঃ আফজাল হোসেন ও উপজেলা চেয়ারম্যান সহ সকল নেতাকর্মীদের উপস্থিতিতে বিষয় টা মীমাংসা হয়। এবং পরবর্তীতে ওনার বাড়ির সামনে একটি হত্যা সংঘটিত হয় তার জেড় ধরে পুনরায় তাদের বাড়ি ঘর ভাংচুর করেন এবং গ্রাম ছাড়া করেন।

 

পরশ সন্ন্যাসীর বড় ছেলে বিরেশ সন্ন্যাসী আমাদের জানান ২২ অক্টোবর ১৫ সালের হত্যায় তার ছোট ভাই বিধান সন্ন্যাসীকে মিথ্যা মামলায় অভিযুক্ত করেন বর্তমানে তার বিদেশ আছেন তাদের বাড়িতে ভাংচুর ও লুটপাট করেন দশ পনেরো জনের একটি সন্ত্রাসী দল যার নেতৃত্ব দেন এডভোকেট মোজাম্মেল হক ভূঁইয়া এবং তাদের নিজ বাড়িতে ফিরতে সহযোগিতা করেছেন স্থানীয় সংসদ সদস্য মো: আফজাল হোসেন এমপি ও পুলিশ প্রশাসন এছাড়া উপস্থিত ছিলেন পিরিজপুর ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ।।

আরো খবর.......

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

পাকুন্দিয়ায় পুলিশের অভিজানে চোরাই মোটরসাইকেল সহ ১ জন আটক

বাজিতপুরে ৬ বছর পর নিজ ফিরলেন সংখ্যালগু পরিবার

আপডেট টাইম : ১২:৪৫:৪৫ অপরাহ্ণ, শুক্রবার, ২৯ জানুয়ারি ২০২১

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি।।

কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর উপজেলার পিরিজপুর ইউনিয়নের গোথালিয়া গ্রামে জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে ২০১৫ সালের ২২ শে অক্টোবর একটি হত্যা কে কেন্দ্র করে হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়ি ঘর ভাংচুর ও লুটপাট হয় এবং এর পর থেকে একটি সংখ্যালুগু পরিবার তাদের পৈতৃক ভিটা-জায়গা ছেড়ে আসছে অন্যত্রে।

গত ২৭ জানুয়ারি ২১ ইং তারিখে স্থানীয় সংসদ সদস্য ও প্রশাসনের সহযোগিতায় নিজ বাড়িতে ফিরলেন সংখ্যালুগু  পরিবারঠি।

বাড়ি এসে ঐ পরিবারের প্রধান পরশ সন্ন্যাসী আমাদের জানান ২০১১ সালের ১ সেপ্টেম্বর আমাদের বাড়ি ঘর ভাংচুর লুটপাট করেন পরে স্থানীয় সংসদ সদস্য৷ মোঃ আফজাল হোসেন ও উপজেলা চেয়ারম্যান সহ সকল নেতাকর্মীদের উপস্থিতিতে বিষয় টা মীমাংসা হয়। এবং পরবর্তীতে ওনার বাড়ির সামনে একটি হত্যা সংঘটিত হয় তার জেড় ধরে পুনরায় তাদের বাড়ি ঘর ভাংচুর করেন এবং গ্রাম ছাড়া করেন।

 

পরশ সন্ন্যাসীর বড় ছেলে বিরেশ সন্ন্যাসী আমাদের জানান ২২ অক্টোবর ১৫ সালের হত্যায় তার ছোট ভাই বিধান সন্ন্যাসীকে মিথ্যা মামলায় অভিযুক্ত করেন বর্তমানে তার বিদেশ আছেন তাদের বাড়িতে ভাংচুর ও লুটপাট করেন দশ পনেরো জনের একটি সন্ত্রাসী দল যার নেতৃত্ব দেন এডভোকেট মোজাম্মেল হক ভূঁইয়া এবং তাদের নিজ বাড়িতে ফিরতে সহযোগিতা করেছেন স্থানীয় সংসদ সদস্য মো: আফজাল হোসেন এমপি ও পুলিশ প্রশাসন এছাড়া উপস্থিত ছিলেন পিরিজপুর ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ।।