ঢাকা ০৫:৪৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
কোটা সংস্কারের পক্ষে সরকার নীতিগতভাবে একমত: আইনমন্ত্রী ঘোষণার পর মানছেন না কোটা আন্দোলনকারীরা আমার ভাইদের ফেরত দেওয়া হোক আগে রায়পুরে বালু উত্তোলনে ভাঙন আতঙ্ক সরকারের কাছ থেকে দৃশ্যমান পদক্ষেপ ও সমাধানের পথ তৈরির প্রত্যাশা করে বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলন শনির আখড়া-যাত্রাবাড়ী সড়কে চলছে সংঘর্ষ, যান চলালাচল অচল করে দিচ্ছেন ফেসবুক লাইভে এসে পদত্যাগের ঘোষণা ছাত্রলীগ নেতার উত্তরায় গুলিতে নর্দান বিশ্ববিদ্যালয়ের ২ শিক্ষার্থী নিহত কমপ্লিট শাটডাউন ঢাকার সঙ্গে সব জেলার যোগাযোগ বন্ধ, টার্মিনাল থেকে ছাড়ছে না কোনো বাস ফুলবাড়ীর দৌলতপুর ইউনিয়নে গরু চুরির হিড়িক দেশবাসীর প্রতি মির্জা ফখরুলের আহ্বান, শিক্ষার্থীদের পাশে দাঁড়ান অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঢাবি, ৬টার মধ্যে হল ছাড়ার নির্দেশ

পশ্চিমাদের সঙ্গে আপস করতে প্রস্তুত রাশিয়া: পুতিন

সময়ের কন্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট টাইম : ০৬:১৫:৪৭ পূর্বাহ্ণ, মঙ্গলবার, ৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২
  • / ১৬২ ৫০০.০০০ বার পাঠক

আন্তর্জাতিক রিপোর্ট।।

ইউক্রেন ইস্যুতে পশ্চিমা দেশগুলোর সঙ্গে আপস করার জন্য প্রস্তুত রয়েছেন বলে জানিয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।

সোমবার ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর সঙ্গে চলা বৈঠক শেষে যৌথ সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানিয়েছেন তিনি।

ফ্রান্স টোয়েন্টিফোরের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। পশ্চিমাদের প্রস্তাব ভেবে দেখতে চান বলেও জানান পুতিন।

তিনি বলেন, ‘সবার জন্য ভালো হয়, এমন আপসের জায়গায় পৌঁছাতে আমরা সব করব।’

মঙ্গলবার ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে গিয়ে দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির জেলেনস্কির সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন। এর পর ফোনে ম্যাক্রোঁর সঙ্গে কথা বলবেন বলে জানান পুতিন।

ক্রেমলিনে সংবাদ সম্মেলনে ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ বলেছেন, ‘পুতিন রাশিয়া এবং পশ্চিমের জন্য কল্যাণ হয় এমন সুনির্দিষ্ট প্রস্তাব দিয়েছেন।’

ম্যাক্রোঁ আরও বলেন, ‘আলোচনায় যুক্ত হওয়ার বিষয়ে সম্মতির কথা আমাকে জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট পুতিন। যেখানে রুশদের নিরাপত্তা না থাকলে ইউরোপীয়দেরও নিরাপত্তা থাকবে না।’

রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনের সঙ্গে বৈঠকে কোনো দিক থেকেই সামরিক পদক্ষেপ না নেওয়া এবং এই ইস্যুতে কৌশল ঠিক করতে আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ।

স্নায়ুযুদ্ধের পর আর কখনই পশ্চিমের সঙ্গে রাশিয়ার মধ্যকার সম্পর্কে এতটা উত্তেজনা সৃষ্টি হয়নি। ইউক্রেন সীমান্তবর্তী অঞ্চলে এখনও রাশিয়ার লাখখানেক সেনা মোতায়েন রয়েছে। সেখানে ট্যাংক, গোলাবারুদ ও যুদ্ধাস্ত্রও পাঠিয়েছে মস্কো। তবে রাশিয়া ইউক্রেন আক্রমণের পরিকল্পনার কথা বরাবরই অস্বীকার করে আসছে।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে রাশিয়া ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলের ক্রিমিয়া উপত্যাকা দখল করে নেয়। এ ঘটনার আট বছরে ক্রিমিয়া সংঘাতে ১৪ হাজারের বেশি মানুষের প্রাণহানি ঘটেছে। ওই এলাকায় বিদ্রোহীদের মদত দিয়ে আসছে রাশিয়া। এখন আবার রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা চরম অবস্থা দেখা দিয়েছে।

আরো খবর.......

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য

পশ্চিমাদের সঙ্গে আপস করতে প্রস্তুত রাশিয়া: পুতিন

আপডেট টাইম : ০৬:১৫:৪৭ পূর্বাহ্ণ, মঙ্গলবার, ৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২

আন্তর্জাতিক রিপোর্ট।।

ইউক্রেন ইস্যুতে পশ্চিমা দেশগুলোর সঙ্গে আপস করার জন্য প্রস্তুত রয়েছেন বলে জানিয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।

সোমবার ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর সঙ্গে চলা বৈঠক শেষে যৌথ সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানিয়েছেন তিনি।

ফ্রান্স টোয়েন্টিফোরের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। পশ্চিমাদের প্রস্তাব ভেবে দেখতে চান বলেও জানান পুতিন।

তিনি বলেন, ‘সবার জন্য ভালো হয়, এমন আপসের জায়গায় পৌঁছাতে আমরা সব করব।’

মঙ্গলবার ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে গিয়ে দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির জেলেনস্কির সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন। এর পর ফোনে ম্যাক্রোঁর সঙ্গে কথা বলবেন বলে জানান পুতিন।

ক্রেমলিনে সংবাদ সম্মেলনে ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ বলেছেন, ‘পুতিন রাশিয়া এবং পশ্চিমের জন্য কল্যাণ হয় এমন সুনির্দিষ্ট প্রস্তাব দিয়েছেন।’

ম্যাক্রোঁ আরও বলেন, ‘আলোচনায় যুক্ত হওয়ার বিষয়ে সম্মতির কথা আমাকে জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট পুতিন। যেখানে রুশদের নিরাপত্তা না থাকলে ইউরোপীয়দেরও নিরাপত্তা থাকবে না।’

রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনের সঙ্গে বৈঠকে কোনো দিক থেকেই সামরিক পদক্ষেপ না নেওয়া এবং এই ইস্যুতে কৌশল ঠিক করতে আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ।

স্নায়ুযুদ্ধের পর আর কখনই পশ্চিমের সঙ্গে রাশিয়ার মধ্যকার সম্পর্কে এতটা উত্তেজনা সৃষ্টি হয়নি। ইউক্রেন সীমান্তবর্তী অঞ্চলে এখনও রাশিয়ার লাখখানেক সেনা মোতায়েন রয়েছে। সেখানে ট্যাংক, গোলাবারুদ ও যুদ্ধাস্ত্রও পাঠিয়েছে মস্কো। তবে রাশিয়া ইউক্রেন আক্রমণের পরিকল্পনার কথা বরাবরই অস্বীকার করে আসছে।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে রাশিয়া ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলের ক্রিমিয়া উপত্যাকা দখল করে নেয়। এ ঘটনার আট বছরে ক্রিমিয়া সংঘাতে ১৪ হাজারের বেশি মানুষের প্রাণহানি ঘটেছে। ওই এলাকায় বিদ্রোহীদের মদত দিয়ে আসছে রাশিয়া। এখন আবার রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা চরম অবস্থা দেখা দিয়েছে।