ঢাকা ১০:২৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
সরাইলে ১০ম বারের মতো আশুতোষ চক্রবর্তী স্মারক শিক্ষাবৃত্তি প্রদান অবশেষে ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে বৈঠ অবশেষে ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে বৈঠকে বসেছেন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকরা মৃত্যুপুরী গাজা নগরী, ‘কুকুরে খাচ্ছে লাশ’ আন্দোলনকারীদের তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য সুশান্ত পালের ‘তোমরা এমনিতেই চাকরি পাবে না, কোটা থাক না থাক’ গাজীপুরে উচ্চ আদালতের রায় উপেক্ষা:ভূমিদস্যুদের সহযোগিতায় স্থানীয় পুলিশ পর্ব ১ মঠবাড়ীয়া আমড়াগাছিয়ায় মাদক সহ ১জন আটক ৬ মাসের কারাদন্ড কোটা আন্দোলন নিয়ে সর্বোচ্চ আদালতের আদেশ নিয়ে শিক্ষার্থীরা ঘরে ফিরে যাবে নিজের আরো সম্পদের পাহাড় এদিকে স্ত্রীকে পাঁচটি জাহাজ কিনে দিয়েছেন এডিসি কামরুল রোববার কোটা আন্দোলনকারীরা সড়কে নামলেই ‘কঠোর ব্যবস্থা’ রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরুতে ইতিবাচক মিয়ানমার। ভারত

কালিয়াকৈর এক মাটি ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা

মাসুদ রানা -নিজস্ব প্রতিনিধি।
  • আপডেট টাইম : ০৯:৩২:০৭ পূর্বাহ্ণ, রবিবার, ২৬ মার্চ ২০২৩
  • / ১০৪ .000 বার পাঠক

 

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে
মাটি ভরাটের কথা বলে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে এক মাটি ব্যবসায়ীকে প্রকাশ্যে দেশীয় অস্ত্র দ্বারা কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।
শুক্রবার বিকেলে উপজেলার আড়াইগঞ্জ বাজারে এ ঘটনা ঘটেছে।

নিহত ব্যবসায়ীর নাম মিজানুর রহমান (২৭)। তিনি কালিয়াকৈর উপজেলার টেকিবাড়ি চাঁনপুর এলাকার ওয়াজ উদ্দিনের ছেলে। এ ঘটনায় শনিবার একটি হত্যা মামলা করেছেন ,মিজানুরের স্ত্রী। ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে হামলাকারীরা ফেসবুকে ‘গণপিটুনি’ বলে চালানোর চেষ্টা করে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

নিহত ব্যক্তির পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার টেকিবাড়ি চাঁনপুর এলাকার মাটি ব্যবসায়ী মিজানুর রহমানকে গতকাল বিকেলে মুঠোফোনে জানানো হয় একটি জায়গায় মাটি ভরাট করা হবে। সেই ফোনের কিছু সময় পর টালাবহ গ্রামের বাসিন্দা নূরুল ইসলাম তাঁকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায় ,পরে আড়াইগঞ্জ বাজারে গেলে পূর্বে থেকে ওত পেতে থাকা ঢালজোড়া গ্রামের আনোয়ার হোসেনসহ ১৫-১৬ জন তাঁকে এলোপাতাড়ি মারধর করতে থাকেন। একপর্যায়ে তিনি অজ্ঞান হয়ে পড়লে হামলাকারীরা ফেলে পালিয়ে যান। পরে আশপাশের লোকজন ও আত্মীয় স্বজনেরা তাঁকে উদ্ধার করে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে রাতে কর্তব্যরত চিকিৎসকেরা মৃত ঘোষণা করেন।

আনোয়ার হোসেন
আড়াইগঞ্জ বাজারে গণধোলাইয়ের মাধ্যমে সন্ত্রাসীদের হাত–পা ভেঙে দিয়েছেন এলাকাবাসী। তাঁর এই স্ট্যাটাসের সঙ্গে ঘটনাস্থলে মিজানুর রহমানের পড়ে থাকাএকটি ছবি যোগ করেন। সেখানে শরীরের ওপরে পিস্তল ও পাশে রাম দা রাখা হয়।

মিজানুর রহমানের সঙ্গে আনোয়ার হোসেনের ব্যবসায়িক বিরোধ ছিল। এর জেরেই বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন নিহত মিজানুরের ভাতিজা মো. আলম হোসেন। তিনি বলেন, ঘটনা ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে গণপিটুনি বলে চালানোর চেষ্টা করা হচ্ছে।

এ ঘটনায় মিজানুরের স্ত্রী অন্তরা বেগম বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। কালিয়াকৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আকবর আলী খান বলেন, আসামিদের গ্রেপ্তার করতে অভিযান চালানো হচ্ছে।

আরো খবর.......

আপলোডকারীর তথ্য

কালিয়াকৈর এক মাটি ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা

আপডেট টাইম : ০৯:৩২:০৭ পূর্বাহ্ণ, রবিবার, ২৬ মার্চ ২০২৩

 

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে
মাটি ভরাটের কথা বলে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে এক মাটি ব্যবসায়ীকে প্রকাশ্যে দেশীয় অস্ত্র দ্বারা কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।
শুক্রবার বিকেলে উপজেলার আড়াইগঞ্জ বাজারে এ ঘটনা ঘটেছে।

নিহত ব্যবসায়ীর নাম মিজানুর রহমান (২৭)। তিনি কালিয়াকৈর উপজেলার টেকিবাড়ি চাঁনপুর এলাকার ওয়াজ উদ্দিনের ছেলে। এ ঘটনায় শনিবার একটি হত্যা মামলা করেছেন ,মিজানুরের স্ত্রী। ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে হামলাকারীরা ফেসবুকে ‘গণপিটুনি’ বলে চালানোর চেষ্টা করে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

নিহত ব্যক্তির পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার টেকিবাড়ি চাঁনপুর এলাকার মাটি ব্যবসায়ী মিজানুর রহমানকে গতকাল বিকেলে মুঠোফোনে জানানো হয় একটি জায়গায় মাটি ভরাট করা হবে। সেই ফোনের কিছু সময় পর টালাবহ গ্রামের বাসিন্দা নূরুল ইসলাম তাঁকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায় ,পরে আড়াইগঞ্জ বাজারে গেলে পূর্বে থেকে ওত পেতে থাকা ঢালজোড়া গ্রামের আনোয়ার হোসেনসহ ১৫-১৬ জন তাঁকে এলোপাতাড়ি মারধর করতে থাকেন। একপর্যায়ে তিনি অজ্ঞান হয়ে পড়লে হামলাকারীরা ফেলে পালিয়ে যান। পরে আশপাশের লোকজন ও আত্মীয় স্বজনেরা তাঁকে উদ্ধার করে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে রাতে কর্তব্যরত চিকিৎসকেরা মৃত ঘোষণা করেন।

আনোয়ার হোসেন
আড়াইগঞ্জ বাজারে গণধোলাইয়ের মাধ্যমে সন্ত্রাসীদের হাত–পা ভেঙে দিয়েছেন এলাকাবাসী। তাঁর এই স্ট্যাটাসের সঙ্গে ঘটনাস্থলে মিজানুর রহমানের পড়ে থাকাএকটি ছবি যোগ করেন। সেখানে শরীরের ওপরে পিস্তল ও পাশে রাম দা রাখা হয়।

মিজানুর রহমানের সঙ্গে আনোয়ার হোসেনের ব্যবসায়িক বিরোধ ছিল। এর জেরেই বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন নিহত মিজানুরের ভাতিজা মো. আলম হোসেন। তিনি বলেন, ঘটনা ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে গণপিটুনি বলে চালানোর চেষ্টা করা হচ্ছে।

এ ঘটনায় মিজানুরের স্ত্রী অন্তরা বেগম বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। কালিয়াকৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আকবর আলী খান বলেন, আসামিদের গ্রেপ্তার করতে অভিযান চালানো হচ্ছে।