ঢাকা ১০:৩৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
ইপিজেড থানা পুলিশের অভিযানে (৫০)লিটার দেশীয় তৈরী চোলাই মদ সহ একজন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার আবারো বাংলাদেশি যুবক আশিকের বিশ্ব রেকর্ড বিমান বাহিনীর নতুন প্রধান হাসান মাহমুদ খাঁন আজ ঘূর্ণিঝড় রেমাল বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে ২৫ লাখ গ্রাহক মোংলায় ঘূর্ণিঝড় রিমেল মোকাবেলায় ব্যাপক কাজ করছে উপজেলা প্রশাসন রায়পুরে সেপটিক ট্যাংকে নেমে আবারও দুই যুবকে মৃত্যু জামালপুরে সবজি চাষে জৈব সার ব্যবহারের উদ্যোগ ঘূর্ণিঝড় রেমাল সতর্কতায় কোস্টগার্ডের মাইকিং টঙ্গীতে রাজনীতির ছত্রছায়ায় ফকির মার্কেটের সুলতানার মাদক ব্যবসা জমজমাট। সবকিছুই জানে, এখনো কেন গ্রেফতার হয়নি, প্রশ্ন আনারকন্যার

পুলিশের ঘুমন্ত শিশুকে কুপিয়ে হত্যা !

বিশেষ প্রতিনিধি।।

খুলনা তেরখাদা উপজেলার আড়কান্দী গ্রামে সোমবার (০৫ এপ্রিল) রাত ১০টার দিকে ৫ বছরের ঘুমন্ত শিশুকে কুপিয়ে হত্যা করেন সৎমা।

নিহত শিশুর নাম তানিশা আক্তার (০৫)। তার বাবা খাজা শেখ আনসার ব্যাটালিয়ন পুলিশে কর্মরত। তিনি ঘটনার সময় বাড়িতে ছিলেন না।

স্থানীয়রা জানান, সাত বছর আগে একই উপজেলার আক্কাস শেখের মেয়ে তাসলিমাকে বিয়ে করেন খাজা শেখ আনসার। দাম্পত্য কলহের একপর্যায়ে তাদের বিবাহবিচ্ছেদ ঘটে।

বছর দেড়েক আগে তিনি মুক্তা খাতুনকে দ্বিতীয় বিয়ে করেন। বিয়ের পর থেকেই শিশু তানিশা আক্তারকে মেনে নিতে পারছিলেন না সৎমা মুক্তা খাতুন। বিভিন্ন সময় তানিশা বাবার বাড়িতে এলে নির্যাতন করত সৎমা মুক্তা।

সোমবার তানিশা বাবার বাড়িতে বেড়াতে এসে দাদির কাছে ঘুমায়। সেখান থেকে সৎমা মুক্তা তাকে উঠিয়ে নিজের কাছে নিয়ে আসেন। রাতে ঘুমন্ত তানিশা আক্তারকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কোপান মুক্তা। এ সময় স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই শিশুর রক্তাক্ত মরদেহ দেখে পুলিশে খবর দেন। পরে শিশুটির সৎমা মুক্তা খাতুনকে আটক করে পুলিশ।

এ সময় জব্দ করা হয় হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত রক্তমাখা ধারালো দা। শিশুটিকে উদ্ধার করে তাৎক্ষণিকভাবে তেরখাদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসকরা তানিশাকে মৃত ঘোষণা করেন।

তেরখাদা থানার ওসি মোহাম্মদ গোলাম মোস্তফা জানান, নিহত শিশুর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় সৎমাকে আটক করা হয়েছে।

আরো খবর.......

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

ইপিজেড থানা পুলিশের অভিযানে (৫০)লিটার দেশীয় তৈরী চোলাই মদ সহ একজন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

পুলিশের ঘুমন্ত শিশুকে কুপিয়ে হত্যা !

আপডেট টাইম : ০৭:৪৫:৫৮ পূর্বাহ্ণ, মঙ্গলবার, ৬ এপ্রিল ২০২১

বিশেষ প্রতিনিধি।।

খুলনা তেরখাদা উপজেলার আড়কান্দী গ্রামে সোমবার (০৫ এপ্রিল) রাত ১০টার দিকে ৫ বছরের ঘুমন্ত শিশুকে কুপিয়ে হত্যা করেন সৎমা।

নিহত শিশুর নাম তানিশা আক্তার (০৫)। তার বাবা খাজা শেখ আনসার ব্যাটালিয়ন পুলিশে কর্মরত। তিনি ঘটনার সময় বাড়িতে ছিলেন না।

স্থানীয়রা জানান, সাত বছর আগে একই উপজেলার আক্কাস শেখের মেয়ে তাসলিমাকে বিয়ে করেন খাজা শেখ আনসার। দাম্পত্য কলহের একপর্যায়ে তাদের বিবাহবিচ্ছেদ ঘটে।

বছর দেড়েক আগে তিনি মুক্তা খাতুনকে দ্বিতীয় বিয়ে করেন। বিয়ের পর থেকেই শিশু তানিশা আক্তারকে মেনে নিতে পারছিলেন না সৎমা মুক্তা খাতুন। বিভিন্ন সময় তানিশা বাবার বাড়িতে এলে নির্যাতন করত সৎমা মুক্তা।

সোমবার তানিশা বাবার বাড়িতে বেড়াতে এসে দাদির কাছে ঘুমায়। সেখান থেকে সৎমা মুক্তা তাকে উঠিয়ে নিজের কাছে নিয়ে আসেন। রাতে ঘুমন্ত তানিশা আক্তারকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কোপান মুক্তা। এ সময় স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই শিশুর রক্তাক্ত মরদেহ দেখে পুলিশে খবর দেন। পরে শিশুটির সৎমা মুক্তা খাতুনকে আটক করে পুলিশ।

এ সময় জব্দ করা হয় হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত রক্তমাখা ধারালো দা। শিশুটিকে উদ্ধার করে তাৎক্ষণিকভাবে তেরখাদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসকরা তানিশাকে মৃত ঘোষণা করেন।

তেরখাদা থানার ওসি মোহাম্মদ গোলাম মোস্তফা জানান, নিহত শিশুর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় সৎমাকে আটক করা হয়েছে।