ঢাকা ০৫:৫৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
পানি নিস্কাশনের রাস্তা বন্ধ করে পুকুর নির্মানের কারনে প্রায় শত বিঘা ফসলী জমি পানির নীচে ইবি শিক্ষার্থীকে গলাটিপে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে তদন্ত কমিটি গঠন কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলায় বেগম জাহানারা হান্নান উচ্চ বিদ্যালয়ে ৩য় বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্টিত জামালপুরে ভেজাল কীটনাশকে বাজার সয়লাব, কৃষি শিল্প ধ্বংসের পাঁয়তারা মোংলায় সিবিএ নির্বাচন নিয়ে শ্রমিক-কর্মচারীদের মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে নওগাঁ প্রাইভেট কার থেকে ৭২ কেজি গাঁজাসহ এক জন গ্রেপ্তার ভাষা সৈনিক মোস্তফা এম এ মতিন সাহিত্য পুরস্কার পেলেন হোসেনপুরের কবি শাহ আলম বিল্লাল গুজরাটের পোরবন্দরের জলসীমায় ২২০০০হাজার, কোটি টাকার মাদকদ্রব্য আটক করেছে নৌবাহিনী ও এনসিবি, গ্রেপ্তার পাঁচ পাক নাগরিক রায়পুরে অসামাজিক কার্যকলাপে আটক ৫ রাজধানীর ৪ হাসপাতালে র‍্যাবের অভিযান

দুর্গাপুর শ্যামপুরে ১৪৪ ধারা ভেঙে প্রতিবেশীর জমিতে প্রাচীর নির্মাণ:

  • সময়ের কন্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট টাইম : ০৫:২০:৫৭ অপরাহ্ণ, বুধবার, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১
  • ১৯৯ ০.০০০ বার পাঠক

রাজশাহী ব‍্যুরো।।

রাজশাহীর দুর্গাপুরে ক্ষমতার প্রভাব খাটিয়ে আদালতের ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে বিবাদমান জমি দখল করে প্রাচীর নির্মাণ করেছে বিবাদী নাজিম উদ্দিন ও তার লোকজন। মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বিকালে দুর্গাপুর উপজেলার শ্যামপুর পশ্চিমপাড়ার নাজিমউদ্দিন ও ভাড়া করা লোকজনের সহযোগিতায় প্রতিবেশী শফিকুলের বসত ভিটায় জোরপূর্বক টিনশেড দিয়ে প্রাচীর নির্মাণ করে। এরআগে শফিুকল রাজশাহী জেলা অতিরিক্ত ম্যাজিট্ট্রেট আদালতে ১৪৪ধারায় মামলা দায়ের করলে থানার পুলিশ প্রশাসন ঘটনাস্থলে গিয়ে সকল স্থাপনা তৈরিতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেন।
স্থানীয় ও মামলার অভিযোগে সূত্রে জানা যায়, উপজেলার শ্যামপুর পশ্চিম পাড়া এলাকার জেএলঃ ৪৬, দাগ নং ৪৬১২ বাড়ীর পার্শ্বে বের হওয়া রাস্তা ওয়ারিশ সূত্রে প্রাপ্ত ও ক্রয়কৃত সম্পত্তির মালিক শফিকুল ইসলাম। গত সপ্তাহে ওই জমি নিজেদের বলে দাবি করেন প্রতিবেশী নাজিম উদ্দিন ও তার লোকজন। পরে ওই বিষয় নিয়ে থানায় অভিযোগ হয়। তাতেও কোন সুরাহা না পেয়ে শফিকুল গত ৯ সেপ্টেম্বর রাজশাহী জেলা অতিরিক্ত ম্যাজিট্ট্রেট আদালতে ১৪৪ধারায় মামলা দায়ের করেন। পরে আদালত মামলাটি আমূলে নিয়ে গত ১২ সেপ্টেম্বর বিবাদমান ওই জায়গার ওপর ১৪৪ধারা জারি করেন। পরের দিন ১৩সেপ্টেম্বর আদালতের আদেশের পর থানায় পুলিশ ঘটনাস্থলে বিবাদমান ওই জমিতে সকল প্রকার স্থাপনা নিষেধাজ্ঞা জারি করে।
তারপরও আদালতের ১৪৪ধারা ভঙ্গ করে মামলার বিবাদী নাজিম উদ্দিন ও তার লোকজন গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে ওই বিবাদমান জায়গা টিনশেডের প্রাচীর নির্মাণ করেন। এদিকে, আদালতে ১৪৪ধারা জারির পর থেকে আসামীর হুমকিতে বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন বাদী শফিকুল ও তাঁর লোকজন।
দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি হাশমত আলী বলেন, বলেন, শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য ১৪৪ ধারা নোটিস আমি উভয় পক্ষকে দিয়েছি। তারপরও সেখানে প্রাচীর নির্মাণের অভিযোগ উঠছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। সরেজমিন তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরো খবর.......

জনপ্রিয় সংবাদ

পানি নিস্কাশনের রাস্তা বন্ধ করে পুকুর নির্মানের কারনে প্রায় শত বিঘা ফসলী জমি পানির নীচে

দুর্গাপুর শ্যামপুরে ১৪৪ ধারা ভেঙে প্রতিবেশীর জমিতে প্রাচীর নির্মাণ:

আপডেট টাইম : ০৫:২০:৫৭ অপরাহ্ণ, বুধবার, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১

রাজশাহী ব‍্যুরো।।

রাজশাহীর দুর্গাপুরে ক্ষমতার প্রভাব খাটিয়ে আদালতের ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে বিবাদমান জমি দখল করে প্রাচীর নির্মাণ করেছে বিবাদী নাজিম উদ্দিন ও তার লোকজন। মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বিকালে দুর্গাপুর উপজেলার শ্যামপুর পশ্চিমপাড়ার নাজিমউদ্দিন ও ভাড়া করা লোকজনের সহযোগিতায় প্রতিবেশী শফিকুলের বসত ভিটায় জোরপূর্বক টিনশেড দিয়ে প্রাচীর নির্মাণ করে। এরআগে শফিুকল রাজশাহী জেলা অতিরিক্ত ম্যাজিট্ট্রেট আদালতে ১৪৪ধারায় মামলা দায়ের করলে থানার পুলিশ প্রশাসন ঘটনাস্থলে গিয়ে সকল স্থাপনা তৈরিতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেন।
স্থানীয় ও মামলার অভিযোগে সূত্রে জানা যায়, উপজেলার শ্যামপুর পশ্চিম পাড়া এলাকার জেএলঃ ৪৬, দাগ নং ৪৬১২ বাড়ীর পার্শ্বে বের হওয়া রাস্তা ওয়ারিশ সূত্রে প্রাপ্ত ও ক্রয়কৃত সম্পত্তির মালিক শফিকুল ইসলাম। গত সপ্তাহে ওই জমি নিজেদের বলে দাবি করেন প্রতিবেশী নাজিম উদ্দিন ও তার লোকজন। পরে ওই বিষয় নিয়ে থানায় অভিযোগ হয়। তাতেও কোন সুরাহা না পেয়ে শফিকুল গত ৯ সেপ্টেম্বর রাজশাহী জেলা অতিরিক্ত ম্যাজিট্ট্রেট আদালতে ১৪৪ধারায় মামলা দায়ের করেন। পরে আদালত মামলাটি আমূলে নিয়ে গত ১২ সেপ্টেম্বর বিবাদমান ওই জায়গার ওপর ১৪৪ধারা জারি করেন। পরের দিন ১৩সেপ্টেম্বর আদালতের আদেশের পর থানায় পুলিশ ঘটনাস্থলে বিবাদমান ওই জমিতে সকল প্রকার স্থাপনা নিষেধাজ্ঞা জারি করে।
তারপরও আদালতের ১৪৪ধারা ভঙ্গ করে মামলার বিবাদী নাজিম উদ্দিন ও তার লোকজন গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে ওই বিবাদমান জায়গা টিনশেডের প্রাচীর নির্মাণ করেন। এদিকে, আদালতে ১৪৪ধারা জারির পর থেকে আসামীর হুমকিতে বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন বাদী শফিকুল ও তাঁর লোকজন।
দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি হাশমত আলী বলেন, বলেন, শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য ১৪৪ ধারা নোটিস আমি উভয় পক্ষকে দিয়েছি। তারপরও সেখানে প্রাচীর নির্মাণের অভিযোগ উঠছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। সরেজমিন তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।