ঢাকা ০২:৪৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
ডিএমপির ৬ কর্মকর্তার বদলি কালিয়াকৈরে পালিত হলো প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনী-২০২৪ দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী মেলা অনুষ্ঠিত রায়পুরে আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত সেভ দ্য রোডের ১৫ দিনব্যাপী সচেতনতা ক্যাম্পেইন সমাপ্ত জামালপুরে কৃষককূল লাউ চাষে স্বাবম্বিতা অর্জন করেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অস্ত্রাগারের ভিডিও সম্প্রচার এক পুলিশ সুপারকে বাধ্যতামূলক অবসর মাদক কারবার-মানি লন্ডারিংয়ে বদির দুই ভাইয়ের সংশ্লিষ্টতা মিলেছে ঠাকুরগাঁওয়ে চেতনা নাশক স্প্রে ব্যবহার করে চুরি এলাকায় আতঙ্ক পরিবারের সংবাদ সম্মেলন মামলা সুষ্ঠু তদন্তের দাবি কলেজ ছাত্রকে মাদক মামলায় ফাঁসানোর দাবি

মেসির বাড়ির সামনে সমর্থকদের ভিড়

অনলাইন ডেস্ক ॥ ফুটবল মহাতারকাকে বার্সেলোনায় আর দেখা যাবে না। দুঃখ ভারাক্রান্ত মনে সমর্থকরা তাই ভিড় করেছেন লিওনেল মেসির বাড়ির সামনে। আশা, শেষবারের মতো দেখা পাবেন প্রিয় ফুটবলারের।

গত ৩০ জুন বার্সেলোনার সঙ্গে চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ার পর ‘ফ্রি এজেন্ট’ হয়ে যাওয়া মেসির সাথে নতুন চুক্তির ব্যাপারে আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছিল কাতালান ক্লাবটি। কিন্তু গত বৃহস্পতিবার তারা জানায়, লা লিগার ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লের নিয়মের বাধার কারণে মেসির সঙ্গে চুক্তি করা সম্ভব হয়নি। এরপর রবিবার সংবাদ সম্মেলনে চোখের জলে প্রিয় ক্লাবকে বিদায় জানান ৩৪ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড। সেখানে আক্ষেপ করেছিলেন ভালোবাসার ক্লাবের সমর্থকদের কাছ থেকে বিদায় নেওয়ার সুযোগ না পাওয়ায়। একই বেদনায় পুড়ছেন তার ভক্তরাও। সময়ের সেরা ফুটবলারকে এক নজর দেখার জন্য অনেকেই জড়ো হয়েছিলেন কাম্প নউ স্টেডিয়ামের বাইরে।

বার্সেলোনার সঙ্গে মেসির ২১ বছরের সম্পর্ক শেষ, তা নিশ্চিত হওয়ার পর থেকেই গুঞ্জন চলছে তার পরবর্তী গন্তব্য নিয়ে। গণমাধ্যমের খবর, ফরাসি ক্লাব পিএসজিতে তার যোগ দেওয়ার সম্ভাবনা খুব বেশি এবং আগামী দুই একদিনের মধ্যে ফ্রান্সে যাবেন মেসি।

তার আগে বর্তমানে বার্সেলোনায় থাকা মেসিকে একবার কাছ থেকে দেখার জন্য তার বাড়ির সামনে ভিড় করছেন তার ভক্তরা।

 

 

সংবাদ সম্মেলনে মেসি জানান, ক্লাবের সঙ্গে নতুন চুক্তি করার জন্য তিনি ৫০ শতাংশ কম বেতন নিতে রাজি হয়েছিলেন। কিন্তু বড় অঙ্কের দেনায় ডুবে থাকা বার্সেলোনার পক্ষে সম্ভব হয়নি লা লিগার ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লের নিয়মের বাধায় মেসির সঙ্গে নতুন চুক্তি করার।

তবে বার্সেলোনা ও আর্জেন্টিনা সমর্থক গনসালো মোরেনো মনে করছেন, বার্সেলোনার স্বদিচ্ছার অভাবেই মেসিকে ক্লাব ছাড়তে হয়েছে।

“আমার মনে হয় না তাকে (মেসি) ক্লাবে রাখার জন্য পর্যাপ্ত চেষ্টা করা হয়েছে। আমি মনে করি, তাকে ধরে রাখাটা ক্লাবের হাতেই ছিল।”

বার্সেলোনার মেসির ১০ নম্বর জার্সি পরে আসা আরেক সমর্থক ক্রিস্তিয়ান গার্সিয়া কোনোভাবেই মেনে নিতে পারছেন না মেসির এভাবে চলে যাওয়াটা।

“খুব খারাপ লাগছে, আমি বিধ্বস্ত। এমন একজন খেলোয়াড় যাকে আমি সবসময় অনুসরণ করেছি, যিনি আমার কাছে উদাহরণস্বরূপ, তাকে এভাবে (ক্লাব) চলে যেতে দেখাটা আমাকে ভীষণ কষ্ট দিচ্ছে।”

মেসিভক্ত হোনাস রোমেরোর আশা, মেসির সঙ্গে ছবি তুলবেন এবং জার্সিতে তার অটোগ্রাফ নিবেন।

“পিএসজিতে যোগ দিতে যাওয়ার আগে তাকে দেখার জন্য অপেক্ষা করছি।”

আরেক ভক্ত সাউল মরেনো তো মানতেই পারছেন না যে প্রিয় ক্লাব ছেড়ে পিএসজিতে যোগ দিবেন ছয়বারের বর্ষসেরা ফুটবলার।

“আমি মেসিকে পিএসজিতে দেখতে চাই না। কিন্তু আমি জানি, তিনি যাচ্ছেন।”

আরো খবর.......

জনপ্রিয় সংবাদ

ডিএমপির ৬ কর্মকর্তার বদলি

মেসির বাড়ির সামনে সমর্থকদের ভিড়

আপডেট টাইম : ০৬:৫২:০১ পূর্বাহ্ণ, মঙ্গলবার, ১০ আগস্ট ২০২১

অনলাইন ডেস্ক ॥ ফুটবল মহাতারকাকে বার্সেলোনায় আর দেখা যাবে না। দুঃখ ভারাক্রান্ত মনে সমর্থকরা তাই ভিড় করেছেন লিওনেল মেসির বাড়ির সামনে। আশা, শেষবারের মতো দেখা পাবেন প্রিয় ফুটবলারের।

গত ৩০ জুন বার্সেলোনার সঙ্গে চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ার পর ‘ফ্রি এজেন্ট’ হয়ে যাওয়া মেসির সাথে নতুন চুক্তির ব্যাপারে আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছিল কাতালান ক্লাবটি। কিন্তু গত বৃহস্পতিবার তারা জানায়, লা লিগার ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লের নিয়মের বাধার কারণে মেসির সঙ্গে চুক্তি করা সম্ভব হয়নি। এরপর রবিবার সংবাদ সম্মেলনে চোখের জলে প্রিয় ক্লাবকে বিদায় জানান ৩৪ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড। সেখানে আক্ষেপ করেছিলেন ভালোবাসার ক্লাবের সমর্থকদের কাছ থেকে বিদায় নেওয়ার সুযোগ না পাওয়ায়। একই বেদনায় পুড়ছেন তার ভক্তরাও। সময়ের সেরা ফুটবলারকে এক নজর দেখার জন্য অনেকেই জড়ো হয়েছিলেন কাম্প নউ স্টেডিয়ামের বাইরে।

বার্সেলোনার সঙ্গে মেসির ২১ বছরের সম্পর্ক শেষ, তা নিশ্চিত হওয়ার পর থেকেই গুঞ্জন চলছে তার পরবর্তী গন্তব্য নিয়ে। গণমাধ্যমের খবর, ফরাসি ক্লাব পিএসজিতে তার যোগ দেওয়ার সম্ভাবনা খুব বেশি এবং আগামী দুই একদিনের মধ্যে ফ্রান্সে যাবেন মেসি।

তার আগে বর্তমানে বার্সেলোনায় থাকা মেসিকে একবার কাছ থেকে দেখার জন্য তার বাড়ির সামনে ভিড় করছেন তার ভক্তরা।

 

 

সংবাদ সম্মেলনে মেসি জানান, ক্লাবের সঙ্গে নতুন চুক্তি করার জন্য তিনি ৫০ শতাংশ কম বেতন নিতে রাজি হয়েছিলেন। কিন্তু বড় অঙ্কের দেনায় ডুবে থাকা বার্সেলোনার পক্ষে সম্ভব হয়নি লা লিগার ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লের নিয়মের বাধায় মেসির সঙ্গে নতুন চুক্তি করার।

তবে বার্সেলোনা ও আর্জেন্টিনা সমর্থক গনসালো মোরেনো মনে করছেন, বার্সেলোনার স্বদিচ্ছার অভাবেই মেসিকে ক্লাব ছাড়তে হয়েছে।

“আমার মনে হয় না তাকে (মেসি) ক্লাবে রাখার জন্য পর্যাপ্ত চেষ্টা করা হয়েছে। আমি মনে করি, তাকে ধরে রাখাটা ক্লাবের হাতেই ছিল।”

বার্সেলোনার মেসির ১০ নম্বর জার্সি পরে আসা আরেক সমর্থক ক্রিস্তিয়ান গার্সিয়া কোনোভাবেই মেনে নিতে পারছেন না মেসির এভাবে চলে যাওয়াটা।

“খুব খারাপ লাগছে, আমি বিধ্বস্ত। এমন একজন খেলোয়াড় যাকে আমি সবসময় অনুসরণ করেছি, যিনি আমার কাছে উদাহরণস্বরূপ, তাকে এভাবে (ক্লাব) চলে যেতে দেখাটা আমাকে ভীষণ কষ্ট দিচ্ছে।”

মেসিভক্ত হোনাস রোমেরোর আশা, মেসির সঙ্গে ছবি তুলবেন এবং জার্সিতে তার অটোগ্রাফ নিবেন।

“পিএসজিতে যোগ দিতে যাওয়ার আগে তাকে দেখার জন্য অপেক্ষা করছি।”

আরেক ভক্ত সাউল মরেনো তো মানতেই পারছেন না যে প্রিয় ক্লাব ছেড়ে পিএসজিতে যোগ দিবেন ছয়বারের বর্ষসেরা ফুটবলার।

“আমি মেসিকে পিএসজিতে দেখতে চাই না। কিন্তু আমি জানি, তিনি যাচ্ছেন।”