1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : cecilarodius8 :
  3. [email protected] : Somoyer Kontha : Somoyer Kontha
সোমবার, ২৬ জুলাই ২০২১, ১২:৩১ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
আমাদের পরিবারের সদস্য বিরামপুরে করোনা কালীন ও লকডাউনে ওএমএস (চাল ও আটা) বিক্রয় কার্যক্রমের শুভ উদ্ধোধন করেন – পৌর মেয়র আক্কাস আলী নবীনগরে স্বাস্থ্য বিধি না মেনে অযথা চলাফেরা করার দায়ে মোবাইল কোর্ট জরিমানা করেন। মিরপুর রুপনগরে জুয়া খেলায় বাঁধা দেয়ায় ব্যবসায়ীকে হত্যার চেষ্টা নীলফামারীর সৈয়দপুরের পুলিশ কর্মকর্তাকে মারধর করে তাঁর পোশাক ছিঁড়ে ফেলার অভিযোগ ফিরে আসতে” প্রশিক্ষণ দেবেন তখন আপনি নিজেকে আরও উপস্থিত থাকবেন সৈয়দপুরে রেললাইনের ধারে দাঁড়িয়ে থাকা কাভার্ড ভ্যানের ধাক্কায় ট্রেনের দুই যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছে নীলফামারীর সৈয়দপুরে বাবার সঙ্গে চুল কাটা নিয়ে বচসা হওয়াতে আরিফ ইসলাম (২০) নামের এক যুবক আত্মহত্যা করেছে সাংবাদিক মোঃ শহিদুল ইসলাম ( শহিদ) এই পিতা মোঃ সুলতান হাওলাদার না ফেরার দেশে চলে গেলেন মোংলায় ফাদার রিগন শিক্ষা উন্নয়ন ফাউন্ডেশন’র অক্সিজেন সিলিন্ডার প্রদান বিরামপুর থানার বিশেষ অভিযানে প্রকাশ্যে জুয়াখেলায় আটক ৩

বিরামপুরে আমন রোপণে ব্যস্ত কৃষক

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১৮ জুলাই, ২০২১, ১.১৩ পিএম
  • ১১ বার পঠিত

এস এম মাসুদ রানা বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি।। দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলা খাদ্যশস্যের ভান্ডার হিসেবে বেশ সু-পরিচিত। এবার এই আমন মৌসুমে উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভার রোপা আমন রোপণে ব্যস্ত সময় পার করছে কৃষকেরা। সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত রোদ-বৃষ্টি ও তীব্র গরমকে উপেক্ষা করে মাঠে নেমে এখন দিন-রাত বীজতলা থেকে চারা তোলা,জমি চাষ ও মই দেওয়াসহ রোপা আমন ধান রোপণে মেতে উঠেছে উপজেলার কৃষকেরা।

সরজমিনে গিয়ে জানা যায় যে,উপজেলার  ৪নং দিওড় ইউনিয়নের ছোট মানুষমুড়া গ্রামের গোলাম মোস্তফা বলেন,আমি ৫-৬ বিঘা জমিতে আমন ধান চাষ করছি। প্রতি বছরের ন্যায় আগাম আমন চাষের জন্য মাঠে নেমেছি। তাই এবারও আগাম চাষের জন্য মাঠে নামছি। আগাম আমন ধান চাষ করলে একদিকে যেমন ভালো ফলন হয়,অন্যদিকে পোকা-মাঁকড় কম থাকায় ভালো ফসল পাওয়া যায়।

পৌরসভা দোশরা পলাশবাড়ী গ্রামের দবিরুল ইসলাম বলেন,আমি ৬-৭ বিঘা জমিতে আমন ধান চাষ করছি। আগাম আমন ধান চাষ করলে একদিকে যেমন ফলন ভালো হয়, অন্যদিকে পোকা-মাঁকড় কম থাকায় ভালো ফসল পাওয়া যায়।

বিরামপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ নিক্সন চন্দ্র পাল জানান,বিরামপুর উপজেলার একটি পৌরসভা ও ৭টি ইউনিয়নে এবার ১৭ হাজার ৪শ ১১হেক্টর জমিতে আমন রোপনের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। আমন আবাদ বৃদ্ধির লক্ষ্যে উপজেলার ৭শ ৩০জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের মাঝে কৃষি প্রণোদনার সার বীজ বিতরণ করা হয়েছে। ধানের অধিক দাম ও কৃষি প্রণোদনা পেয়ে কৃষকরা লক্ষ্যমাত্রার অধিক বীজতলায় বীজ বপন করেছেন। ইতিমধ্যে কৃষকরা আগাম জাতের আমন চারা রোপন শুরু করেছে। কৃষকদের রোপনকৃত চারার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে গুটি সর্না,সর্না-৫, ব্রি-৩৪,৫১,৭১,৭৫, হাইব্রিড ও বিনা-১৭,২০ জাতের ধান।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazarsomoyer14
© All rights reserved  2019-2021 somoyerkontha.com