ঢাকা ০২:১০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
ডিএমপির ৬ কর্মকর্তার বদলি কালিয়াকৈরে পালিত হলো প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনী-২০২৪ দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী মেলা অনুষ্ঠিত রায়পুরে আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত সেভ দ্য রোডের ১৫ দিনব্যাপী সচেতনতা ক্যাম্পেইন সমাপ্ত জামালপুরে কৃষককূল লাউ চাষে স্বাবম্বিতা অর্জন করেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অস্ত্রাগারের ভিডিও সম্প্রচার এক পুলিশ সুপারকে বাধ্যতামূলক অবসর মাদক কারবার-মানি লন্ডারিংয়ে বদির দুই ভাইয়ের সংশ্লিষ্টতা মিলেছে ঠাকুরগাঁওয়ে চেতনা নাশক স্প্রে ব্যবহার করে চুরি এলাকায় আতঙ্ক পরিবারের সংবাদ সম্মেলন মামলা সুষ্ঠু তদন্তের দাবি কলেজ ছাত্রকে মাদক মামলায় ফাঁসানোর দাবি

টঙ্গীতে তিলারগাতি গ্রামের নিরাপত্তায় ভুমিকা রাখছে সিসি ক্যামেরা ওসি শাহ আলম

স্টাফ রিপোর্টার  গাজীপুর।।

গাজীপুর মহানগরীর টঙ্গী পশ্চিম থানাধীন তিলারগাতি ও বড়দেওরা এলাকার উত্তর –পশ্চিম সিমানা পর্যন্ত এলাকার বিভিন্ন রাস্তা ও অলি গলিতে প্রায়ই মাদক কারবার, মাদক সেবন, ছিনতাই, কিশোর গ্যং, ইভটিজিংসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড দিন দিন বেড়েই চলছে। এতে সামাজিক অবক্ষয় চরম পর্যায়ে পৌছে যাচ্ছে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, নিত্যদিনের বহু সমস্যার অবসান ঘটিয়ে তিলারগাতি ও বড়দেওড়া এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা রক্ষা ও নিরাপত্তায় বিরল ভুমিকা রাখছে তিলারগাতি গ্রামের বিশিষ্ট সমাজ সেবক ও উদ্যোগতা রুবেল মন্ডলের নিজ উদ্যে্যাগে বসানো সিসি ক্যামেরা। গত ১০ই মে ২০২১ইং তারিখে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ—পুলিশ কমিশনার (অপরাধ দক্ষিণ) ইলতুত মিশ তিলারগাতি এলাকার ডিজিটাল সিসি ক্যামেরা কার্যক্রম উদ্ভোধন করেন।

ডিজিটাল সিসি ক্যামেরা কার্যক্রমের বিষয়ে রুবেল মন্ডল বলেন, বাংলাদেশের অন্যতম শিল্পাঞ্চল হিসেবে পরিচিত গাজীপুরের টঙ্গী। এখানে বেশ কয়েক বছরে গড়ে উঠেছে নতুন নতুন অসংখ্য শিল্প প্রতিষ্ঠান। দেশের প্রত্যান্ত অঞ্চলের শ্রমজীবী মানুষ জীবিকার তাগিদে বাসা বুনছে টঙ্গীতে। জীবিকার তাগিদে অনেকে জড়িয়ে পড়ছে বিভিন্ন অপরাধ মুলক কর্মকাণ্ডের সাথে। এরা চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই, খুনসহ বিভিন্ন মাদক কারবারের সাথে জড়িয়ে পরছে। আমাদের তিলারগাতি এলাকার কিছু স্থানীয় বাসিন্দার ছত্র ছায়ার, এলাকার ও বহিরাগত কিছু সন্ত্রাসী প্রায় দিনই এলাকার বিভিন্ন শ্রমজীবী ভাড়াটিয়াদের রাস্তায় আটক করে বিভিন্ন দেশীয় ও বিদেশী অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে সর্বস্ব লুট করে নিত। এলাকার মেয়েদের সাথে ইফটিজিংসহ বিভিন্ন অশোভনীয় আচরণ করতো। মাদকের টাকার জোগান দিতে খুন করতেও এদের হাত কাপে না। অথচ এলাকার নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে আমি তিলারগাতি গ্রাম ও আশপাশের গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে ৫০ টি সিসি ক্যামেরা স্থাপন করেছি। সিসি ক্যামেরা স্থাপনে এলাকার বিভিন্ন পয়েন্টে সংগঠিত বিভিন্ন অপরাধ চিত্র বের হয়ে এসেছে। পুলিশ প্রশাসন দ্রুত ভিত্তিতে অপরাধীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনতে পারছে। যার ফলে অপরাধীরা ভয়ে এই গ্রামে কোন প্রকার অপরাধ সংগঠিত করার সাহস হারিয়ে ফেলে। আমি সিসি ক্যামেরাকে নিরাপত্তার ডিজিটাল চোখ বলে মনে করি। সিসি ক্যামেরা বদলে দিয়েছে তিলারগাতি গ্রামের বর্তমান চিত্র। সবাই উদ্যোগ নিয়ে নিজ নিজ বাড়ি ও প্রতিষ্ঠানে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করলে গড়ে উঠবে নিরাপদ ডিজিটাল বাংলাদেশ।

এবিষয়ে টঙ্গী পশ্চিম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ শাহ আলম বলেন, রুবেল মন্ডলের উদ্যোগে ডিজিটাল সিসি ক্যামেরা কার্যক্রমে তিলারগাতি ও আশপাশের এলাকায় অপরাধ প্রবনতা অনেকটাই কমে গেছে। এই কার্যক্রমের মাধ্যমে দ্রুত অপরাধীদের চিহ্নিত করা সম্ভব। তাই আপনারা নিজ বাড়ি ও প্রতিষ্ঠানে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করে নিরাপত্তা ব্যাবস্থা আরো জোরদার করবের।

আরো খবর.......

জনপ্রিয় সংবাদ

ডিএমপির ৬ কর্মকর্তার বদলি

টঙ্গীতে তিলারগাতি গ্রামের নিরাপত্তায় ভুমিকা রাখছে সিসি ক্যামেরা ওসি শাহ আলম

আপডেট টাইম : ০৮:১১:৩৯ পূর্বাহ্ণ, শুক্রবার, ৯ জুলাই ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার  গাজীপুর।।

গাজীপুর মহানগরীর টঙ্গী পশ্চিম থানাধীন তিলারগাতি ও বড়দেওরা এলাকার উত্তর –পশ্চিম সিমানা পর্যন্ত এলাকার বিভিন্ন রাস্তা ও অলি গলিতে প্রায়ই মাদক কারবার, মাদক সেবন, ছিনতাই, কিশোর গ্যং, ইভটিজিংসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড দিন দিন বেড়েই চলছে। এতে সামাজিক অবক্ষয় চরম পর্যায়ে পৌছে যাচ্ছে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, নিত্যদিনের বহু সমস্যার অবসান ঘটিয়ে তিলারগাতি ও বড়দেওড়া এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা রক্ষা ও নিরাপত্তায় বিরল ভুমিকা রাখছে তিলারগাতি গ্রামের বিশিষ্ট সমাজ সেবক ও উদ্যোগতা রুবেল মন্ডলের নিজ উদ্যে্যাগে বসানো সিসি ক্যামেরা। গত ১০ই মে ২০২১ইং তারিখে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ—পুলিশ কমিশনার (অপরাধ দক্ষিণ) ইলতুত মিশ তিলারগাতি এলাকার ডিজিটাল সিসি ক্যামেরা কার্যক্রম উদ্ভোধন করেন।

ডিজিটাল সিসি ক্যামেরা কার্যক্রমের বিষয়ে রুবেল মন্ডল বলেন, বাংলাদেশের অন্যতম শিল্পাঞ্চল হিসেবে পরিচিত গাজীপুরের টঙ্গী। এখানে বেশ কয়েক বছরে গড়ে উঠেছে নতুন নতুন অসংখ্য শিল্প প্রতিষ্ঠান। দেশের প্রত্যান্ত অঞ্চলের শ্রমজীবী মানুষ জীবিকার তাগিদে বাসা বুনছে টঙ্গীতে। জীবিকার তাগিদে অনেকে জড়িয়ে পড়ছে বিভিন্ন অপরাধ মুলক কর্মকাণ্ডের সাথে। এরা চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই, খুনসহ বিভিন্ন মাদক কারবারের সাথে জড়িয়ে পরছে। আমাদের তিলারগাতি এলাকার কিছু স্থানীয় বাসিন্দার ছত্র ছায়ার, এলাকার ও বহিরাগত কিছু সন্ত্রাসী প্রায় দিনই এলাকার বিভিন্ন শ্রমজীবী ভাড়াটিয়াদের রাস্তায় আটক করে বিভিন্ন দেশীয় ও বিদেশী অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে সর্বস্ব লুট করে নিত। এলাকার মেয়েদের সাথে ইফটিজিংসহ বিভিন্ন অশোভনীয় আচরণ করতো। মাদকের টাকার জোগান দিতে খুন করতেও এদের হাত কাপে না। অথচ এলাকার নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে আমি তিলারগাতি গ্রাম ও আশপাশের গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে ৫০ টি সিসি ক্যামেরা স্থাপন করেছি। সিসি ক্যামেরা স্থাপনে এলাকার বিভিন্ন পয়েন্টে সংগঠিত বিভিন্ন অপরাধ চিত্র বের হয়ে এসেছে। পুলিশ প্রশাসন দ্রুত ভিত্তিতে অপরাধীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনতে পারছে। যার ফলে অপরাধীরা ভয়ে এই গ্রামে কোন প্রকার অপরাধ সংগঠিত করার সাহস হারিয়ে ফেলে। আমি সিসি ক্যামেরাকে নিরাপত্তার ডিজিটাল চোখ বলে মনে করি। সিসি ক্যামেরা বদলে দিয়েছে তিলারগাতি গ্রামের বর্তমান চিত্র। সবাই উদ্যোগ নিয়ে নিজ নিজ বাড়ি ও প্রতিষ্ঠানে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করলে গড়ে উঠবে নিরাপদ ডিজিটাল বাংলাদেশ।

এবিষয়ে টঙ্গী পশ্চিম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ শাহ আলম বলেন, রুবেল মন্ডলের উদ্যোগে ডিজিটাল সিসি ক্যামেরা কার্যক্রমে তিলারগাতি ও আশপাশের এলাকায় অপরাধ প্রবনতা অনেকটাই কমে গেছে। এই কার্যক্রমের মাধ্যমে দ্রুত অপরাধীদের চিহ্নিত করা সম্ভব। তাই আপনারা নিজ বাড়ি ও প্রতিষ্ঠানে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করে নিরাপত্তা ব্যাবস্থা আরো জোরদার করবের।