ঢাকা ০১:৩৫ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ অগাস্ট ২০২২
সংবাদ শিরোনাম ::
কাশিমপুরে যথাযোগ্য মর্যাদায় ১৫ আগস্ট পালিত কাউন্সিলর সাইজুউদ্দিন মোল্লা! এডভোকেট আতিকের খুনি গাজীপুর কাশেমপুরে থানাধীন এলাকায় আগে ককটেল পরে  ফিল্মি স্টাইলে ডাকাতি আশুলিয়া দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ৭৭ তম জন্মবার্ষিকী পালিত ট্রেনের ছাদে যাত্রী, মানছে না নিয়ম ট্রেনের ছাদে যাত্রী নেয়া নিষেধ থাকলেও, হরহামেশা যাত্রী উঠেই যাচ্ছেন গাজীপুরে নবীণ প্রবীণ সংঘের উদ্দোগে ১৫ ই আগস্ট জাতিয় শোক দিবস (২০২২)এ আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত বেনাপোলে “সোনালী লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানী লিমিটেড” এর মেট্রো শাখা উদ্বোধণ আশুলিয়ায় সাইদুর রহমান এর আয়োজনে ১৫ ই আগস্ট (২০২২) জাতিয় শোক দিবসে দোয়া ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত কাশেমপুর ভাঙ্গা ব্রিজের জন্য শত শত মানুষের দুর্ভোগ পাঁচবিবিতে বসত বাড়ী ফিরে পেতে মানববন্ধন

খুলনা বিভাগে করোনায় এক দিনে প্রাণ গেল রেকর্ড ৪৬ জনের

স্টাফ রিপোর্টার, খুলনাদ ॥

খুলনা,বিভাগে,করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ও আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু কানেভাবে থামছেইনা। করোনায় প্রতিদিন নতুন করে আক্রান্ত ও মৃত্যুর মিছিলে যোগ হচ্ছে বহু মানুষ। পূর্বের রেকর্ড ভেঙ্গে মৃত্যুর মিছিলে নতুন রেকর্ড হচ্ছে। বিভাগে করোনা পরিস্থিতি এখন ভয়ংকর হয়ে উঠেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় খুলনা বিভাগে আগের রেকর্ড ভেঙ্গে এযাতকালের সর্বেচ্চ রেকর্ড ৪৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে বিভাগের ১০ জেলায় নতুন করে করোনা পজেটিভ শনাক্ত হয়েছে ১হাজার ৩০৪ জনের।

আজ রবিবার দুপের খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদফতরের দেয়া প্রতিবেদনে থেকে এ তথ্য জানা যায়। প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, গত ২৪ ঘন্টায় বিভাগের ১০ জেলায় করোনায় অক্রান্ত হয়ে ৪৬ জন রোগী মারা গেছেন। কারোনাভাইরাসের সংক্রমণের শুরু থেকে এখন পর্যন্ত খুলনা বিভাগে মোট ৬০ হাজার ৫৬৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এ পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ১হাজার ২১৪ জনের। সুস্থ হয়েছেন ৪০ হাজার ২১৮জন।

খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য দফতরের দেয়া তথ্য অনুযায়ী গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে খুলনা জেলায় ১৫ জন, বাগেরহাটে ১জন, সাতক্ষীরায় ১জন, যশোরে ৭ জন, মাগুরা জেলায় ২ জন, ঝিনাইদহে ২ জন, কুষ্টিয়ায় ১৫ জন, চুয়াডাঙ্গায় ২ জন এবং মেহেরপুরে ১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

বিাভাগীয় স্বাস্থ্য দফতরের দেয়া তথ্যে গত ২৪ ঘন্টায় করোনভাইরাসে সংক্রমণ শাণাক্ত হয়েছে খুলনা জেলায় ১৫০জন, বাগেরহাটে ১৫৩ জন, সাতক্ষীরায় ১২৫ জন, যশোরে ১৯৫ জন, নড়াইল জেলায় ১২১ জন, মাগুরায় ৬৬ জন, ঝিনাইদহে ১১৩ জন, কুষ্টিয়ায় ১৯২জন, চুয়াডাঙ্গায় ১৪০ জন ও মেহেরপুর জেলায় ৪৯ জন।

উল্লেখ্য, এর আগে খুলনা বিভাগে ৩ জুলাই ৩২ জন, ২ জালাই ২৭ জনএবং ১ জুলাই রেকর্ড ৩৯ জনের মৃত্যু হয়। এ ছাড়া ৩০ জুন ২৭ জন, ২৯জুন ৩২ জন, ২৮ জুন ৩০ জন, ২৭ জুন ২৮ জন, ২৬ জুন ১৪ জন, ২৫ জুন ২৩ জন, ২৪ জুন ২০ জন, ২৩ জুন প্রথম রেকর্ড সংখ্যক ৩২ জনের মৃত্যু হয়। তার আগেরদিন ২২ জুন মারা যান ২৭জন।

আরো খবর.......
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

কাশিমপুরে যথাযোগ্য মর্যাদায় ১৫ আগস্ট পালিত

খুলনা বিভাগে করোনায় এক দিনে প্রাণ গেল রেকর্ড ৪৬ জনের

আপডেট টাইম : ১০:১২:০১ পূর্বাহ্ণ, রবিবার, ৪ জুলাই ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার, খুলনাদ ॥

খুলনা,বিভাগে,করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ও আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু কানেভাবে থামছেইনা। করোনায় প্রতিদিন নতুন করে আক্রান্ত ও মৃত্যুর মিছিলে যোগ হচ্ছে বহু মানুষ। পূর্বের রেকর্ড ভেঙ্গে মৃত্যুর মিছিলে নতুন রেকর্ড হচ্ছে। বিভাগে করোনা পরিস্থিতি এখন ভয়ংকর হয়ে উঠেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় খুলনা বিভাগে আগের রেকর্ড ভেঙ্গে এযাতকালের সর্বেচ্চ রেকর্ড ৪৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে বিভাগের ১০ জেলায় নতুন করে করোনা পজেটিভ শনাক্ত হয়েছে ১হাজার ৩০৪ জনের।

আজ রবিবার দুপের খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদফতরের দেয়া প্রতিবেদনে থেকে এ তথ্য জানা যায়। প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, গত ২৪ ঘন্টায় বিভাগের ১০ জেলায় করোনায় অক্রান্ত হয়ে ৪৬ জন রোগী মারা গেছেন। কারোনাভাইরাসের সংক্রমণের শুরু থেকে এখন পর্যন্ত খুলনা বিভাগে মোট ৬০ হাজার ৫৬৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এ পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ১হাজার ২১৪ জনের। সুস্থ হয়েছেন ৪০ হাজার ২১৮জন।

খুলনা বিভাগীয় স্বাস্থ্য দফতরের দেয়া তথ্য অনুযায়ী গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে খুলনা জেলায় ১৫ জন, বাগেরহাটে ১জন, সাতক্ষীরায় ১জন, যশোরে ৭ জন, মাগুরা জেলায় ২ জন, ঝিনাইদহে ২ জন, কুষ্টিয়ায় ১৫ জন, চুয়াডাঙ্গায় ২ জন এবং মেহেরপুরে ১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

বিাভাগীয় স্বাস্থ্য দফতরের দেয়া তথ্যে গত ২৪ ঘন্টায় করোনভাইরাসে সংক্রমণ শাণাক্ত হয়েছে খুলনা জেলায় ১৫০জন, বাগেরহাটে ১৫৩ জন, সাতক্ষীরায় ১২৫ জন, যশোরে ১৯৫ জন, নড়াইল জেলায় ১২১ জন, মাগুরায় ৬৬ জন, ঝিনাইদহে ১১৩ জন, কুষ্টিয়ায় ১৯২জন, চুয়াডাঙ্গায় ১৪০ জন ও মেহেরপুর জেলায় ৪৯ জন।

উল্লেখ্য, এর আগে খুলনা বিভাগে ৩ জুলাই ৩২ জন, ২ জালাই ২৭ জনএবং ১ জুলাই রেকর্ড ৩৯ জনের মৃত্যু হয়। এ ছাড়া ৩০ জুন ২৭ জন, ২৯জুন ৩২ জন, ২৮ জুন ৩০ জন, ২৭ জুন ২৮ জন, ২৬ জুন ১৪ জন, ২৫ জুন ২৩ জন, ২৪ জুন ২০ জন, ২৩ জুন প্রথম রেকর্ড সংখ্যক ৩২ জনের মৃত্যু হয়। তার আগেরদিন ২২ জুন মারা যান ২৭জন।