1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : cecilarodius8 :
  3. [email protected] : Somoyer Kontha : Somoyer Kontha
রবিবার, ২৫ জুলাই ২০২১, ১১:৫২ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
আমাদের পরিবারের সদস্য বিরামপুরে করোনা কালীন ও লকডাউনে ওএমএস (চাল ও আটা) বিক্রয় কার্যক্রমের শুভ উদ্ধোধন করেন – পৌর মেয়র আক্কাস আলী নবীনগরে স্বাস্থ্য বিধি না মেনে অযথা চলাফেরা করার দায়ে মোবাইল কোর্ট জরিমানা করেন। মিরপুর রুপনগরে জুয়া খেলায় বাঁধা দেয়ায় ব্যবসায়ীকে হত্যার চেষ্টা নীলফামারীর সৈয়দপুরের পুলিশ কর্মকর্তাকে মারধর করে তাঁর পোশাক ছিঁড়ে ফেলার অভিযোগ ফিরে আসতে” প্রশিক্ষণ দেবেন তখন আপনি নিজেকে আরও উপস্থিত থাকবেন সৈয়দপুরে রেললাইনের ধারে দাঁড়িয়ে থাকা কাভার্ড ভ্যানের ধাক্কায় ট্রেনের দুই যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছে নীলফামারীর সৈয়দপুরে বাবার সঙ্গে চুল কাটা নিয়ে বচসা হওয়াতে আরিফ ইসলাম (২০) নামের এক যুবক আত্মহত্যা করেছে সাংবাদিক মোঃ শহিদুল ইসলাম ( শহিদ) এই পিতা মোঃ সুলতান হাওলাদার না ফেরার দেশে চলে গেলেন মোংলায় ফাদার রিগন শিক্ষা উন্নয়ন ফাউন্ডেশন’র অক্সিজেন সিলিন্ডার প্রদান বিরামপুর থানার বিশেষ অভিযানে প্রকাশ্যে জুয়াখেলায় আটক ৩

বলছে মন্ত্রণালয়-এডিসি মশিউরকে এবার গাজীপুর ছাড়তে হবে।

  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ২ জুলাই, ২০২১, ৪.২৮ এএম
  • ৫৫ বার পঠিত

স্টাফ রিপোর্টার : একাধিকবার বদলির আদেশের পরও বহাল থাকা গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মশিউর রহমানকে অবমুক্ত করা হবে।

বৃহস্পতিবার জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের এপিডি অনুবিভাগের অতিরিক্ত সচিব আনিছুর রহমান মিঞা আলোকিত নিউজকে এ তথ্য জানান।

মশিউর রহমান প্রায় তিন বছর আগে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) হিসেবে গাজীপুরে যোগদান করেন। বেশির ভাগ সময় ধরে আছেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) পদে।

এই সময়ে তার দপ্তরের এলএ শাখা ও বিভিন্ন ইউনিয়ন ভূমি অফিসে ব্যাপক ঘুষ-দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে।

আরও পড়ুন : কাপাসিয়ায় ঘুষ নিয়ে ডাইরিতে হিসাব রাখেন নায়েব আলমগীর!

কিন্তু যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের নজির তেমন নেই। ফলে জনসাধারণের ভোগান্তি ও হয়রানি বেড়েই চলছে।

বিষয়টির ওপর গত ২৩ জুন আলোকিত নিউজে ‘বারবার বদলির আদেশ : গাজীপুর ছাড়তে চান না এডিসি মশিউর’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এ নিয়ে চলে ব্যাপক তোলপাড়।

জানতে চাইলে অতিরিক্ত সচিব আনিছুর রহমান মিঞা আলোকিত নিউজকে বলেন, ডিসি সাহেব রিলিজ করে দিলেই রিলিজ হয়ে যাবে। আমরা তো তার বদলে অফিসার দিয়ে দিয়েছি। রিলিজ হওয়া ছাড়া আর বিকল্প নেই।

তিনি আরও বলেন, ডিসি সাহেব যদি লিখেন যে তার এই কারণে প্রয়োজন, তাহলে অনেক সময় কর্তৃপক্ষ বিবেচনা করে। কিন্তু ডিসি সাহেব লিখেননি। ধরে নিচ্ছি যে ছেড়ে দিবেন দুই-চার দিনের ভেতরে।

অনুসন্ধানে প্রাপ্ত তথ্যমতে, এডিসি মশিউর রহমানের বিরুদ্ধে ভূমি মন্ত্রণালয়, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়, বিভাগীয় কমিশনার ও দুর্নীতি দমন কমিশনে লিখিত অভিযোগ পড়েছে। বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয় থেকে জেলা প্রশাসক এস এম তরিকুল ইসলামকে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হলেও অগ্রগতি নেই।

এরই মধ্যে গত বছরের ৪ ফেব্রুয়ারি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের প্রেষণ-১ অধিশাখা থেকে মশিউর রহমানকে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ে বদলি করা হয়। পরে তাকে অবমুক্ত না করে চার মাস পর বদলির আদেশ বাতিল করা হয়।

চলতি বছরের ৩১ মে মশিউর রহমানকে আবারও বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে বদলির আদেশ হয়েছে। কিন্তু তিনি এবারও ওপর মহলে তদবির করে বহাল থাকার চেষ্টা করছেন।

অথচ একই তারিখে বদলি হওয়া জামালপুরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট নাসরীন পারভীন ইতিমধ্যে গাজীপুরে যোগদান করেছেন। মশিউর রহমানের কর্মকাণ্ড অসদাচরণ বলে মন্তব্য করেছেন কেউ কেউ।

 আরও পড়ুন :  খবর

বারবার বদলির আদেশ : গাজীপুর ছাড়তে চান না এডিসি মশিউর!

সময়ের কন্ঠ রিপোর্টে : গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসকদের মধ্যে মশিউর রহমান বেশ আলোচিত।

তিনি প্রায় তিন বছর আগে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) হিসেবে যোগদান করেন। বেশির ভাগ সময় ধরে আছেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) পদে।

এই সময়ে তার দপ্তরের এলএ শাখা ও বিভিন্ন ইউনিয়ন ভূমি অফিসে ব্যাপক ঘুষ-দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে।

কিন্তু যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের নজির তেমন নেই। ফলে জনসাধারণের ভোগান্তি ও হয়রানি বেড়েই চলছে।

আরও পড়ুন : শ্রীপুরে ‘বনকে জোত দেখিয়ে’ নায়েব আলামিন ও ফজলুল হকের বাণিজ্য

অনুসন্ধানে জানা যায়, এডিসি মশিউর রহমানের বিরুদ্ধে ভূমি মন্ত্রণালয়, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়, বিভাগীয় কমিশনার ও দুর্নীতি দমন কমিশনে লিখিত অভিযোগ পড়েছে। বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয় থেকে জেলা প্রশাসককে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হলেও অগ্রগতি নেই। একবার তাগিদপত্রও দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন : গাজীপুরে ‘বনের দাগে’ কোটি টাকার অধিগ্রহণ বিল!

এরই মধ্যে গত বছরের ৪ ফেব্রুয়ারি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের প্রেষণ-১ অধিশাখা থেকে মশিউর রহমানকে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের বাধ্যতামূলক প্রাথমিক শিক্ষা বাস্তবায়ন ইউনিটে বদলি করা হয়। পরে তাকে অবমুক্ত না করে চার মাস পর ৯ জুন বদলির আদেশ বাতিল করা হয়।

চলতি বছরের ৩১ মে মশিউর রহমানকে আবারও ২৮১ নম্বর স্মারকে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব পদে বদলির আদেশ হয়েছে। তবে গত প্রায় এক মাসেও তাকে অবমুক্ত করা হয়নি।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ২৫তম ব্যাচের কর্মকর্তা মশিউর রহমান এবারও ওপর মহলে তদবির করে বহাল থাকার চেষ্টা করছেন। যদিও একই তারিখে বদলি হওয়া জামালপুরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট নাসরীন পারভীন চলতি সপ্তাহে গাজীপুরে যোগদান করেছেন।

আরও পড়ুন : কাপাসিয়ার ‘ঘুষখোর’ নায়েব খবীর মোল্লাকে বদলি করেই দায় শেষ!

নথিপত্র ঘেঁটে দেখা যায়, মশিউর রহমানের বদলির প্রথম আদেশের মাসে ২৩ ফেব্রুয়ারি গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শাহেনুর আলমকে বিয়াম ফাউন্ডেশনে বদলি করা হয়। এরপর তাকে দ্রুত অবমুক্ত করা হয়।

এ ছাড়া যে তারিখে মশিউর রহমানের বদলির আদেশ বাতিল হয়, ওই একই তারিখে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক আবু নাসার উদ্দিনকে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে বদলি করা হয়। তিনিও যথারীতি দ্রুত অবমুক্ত হন।

প্রশ্ন উঠেছে, মশিউর রহমানের বদলির আদেশের পর একই পদমর্যাদার দুজন কর্মকর্তার বদলির আদেশ কার্যকর হলেও তার ক্ষেত্রে হচ্ছে না কেন? সার্ভিস রুলসের কোন ব্যত্যয় ঘটছে কী?

এ ব্যাপারে এডিসি মশিউর রহমানের সাথে মোবাইলে দুই দিন যোগাযোগের চেষ্টা করলেও তিনি কল ধরেননি।

জেলা প্রশাসক এস এম তরিকুল ইসলামকে ফোন দিলে তিনি কেটে দেন। পরে তার মেসেজ পেয়ে বিষয়টি উল্লেখ করে মেসেজ পাঠালে আর সাড়া পাওয়া যায়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazarsomoyer14
© All rights reserved  2019-2021 somoyerkontha.com