ঢাকা ০৫:৫৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
মনোহরদীতে নানা আয়োজনে বর্ষবরণ উৎসব পালিত হয়েছে ঠাকুরগাঁও। রুহিয়া ঐতিহ্যবাহী বৈশাখী মেলা করোনাভাইরাস এর কারণে বন্ধ থাকায় আবারও পাঁচ বছর পর ১০ দিনব্যাপী বৈশাখী মেলার আয়োজন করা হয়েছে রানীশংকৈলে নানা আয়োজনে বাংলা নববর্ষ উদযাপিত রায়পুরে পহেলা বৈশাখে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা নবাবগঞ্জে বাংলা নববর্ষ ১৪৩১ পালিত ঘাটাইলে ব্যবসায়ীর হাত-পায়ের রগ কেটে সর্বস্ব লুট টঙ্গীতে চাঁদা না পেয়ে ব্যবসায়ীর উপর হামলা: তদন্তে গিয়ে সিসিটিভি আবদার করলো পুলিশ! আনোয়ারা বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ে ঈদ পূর্ণমিলনী ও মত বিনিময় সভা মোংলায় নিরুদ্দেশ মোতালেব জমাদ্দারের নাতিদের আকিকা অনুষ্ঠানে হাজারও লোকের ভিড় বহিষ্কার মোঃ রবিউল ইসলাম রবি কে দৈনিক সময়ের কন্ঠ পত্রিকা ও অনলাইন থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে

ডিমলায় সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও ব্রাক প্রোণ কমিউনিটির ব্যবসা জমজমাট

mde

ডিমলায় সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও ব্রাক

প্রোণ কমিউনিটির ব্যবসা জমজমাট

মাসুদ রানা সোহেল

ব্যুরো প্রধান

দেশ যখন কোভিট ১৯ কোরোনা ভাইরাসের সংক্রমণ এরাতে সরকার ঘোষিত দেশের

সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ। সরকারের ভাষ্যমতে কোমল মতি শিক্ষার্থীরা যেন বাড়ীর

বাহিরে না বেরায়, তাদের সুরক্ষা জন্য শিক্ষা ভাতার অর্থ মোবাইল ব্যাংকিং এর

মাধ্যমে পৌছে দিচ্ছেন। এমতাবস্তায় সরকারের বিধি নিষেধ কে বুড়ো আঙ্গুল

দেখিয়ে অভিভাবক কে ভুলভাল বুঝিয়ে ব্রাক প্রোণ কমিউনিটি স্কুলগুলো

প্রাইভেটের নাম করে জমজমাট ব্যাবসা করে হাতি নিচ্ছেন লাখ লাখ টাকা।

সমাজের লোকের প্রশ্ন একই দেশে দৈব আইন চলে কি করে।যদি চলে সব প্রতিষ্ঠান

চলবে,বন্ধ হলে সব বন্ধ হবে।বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষ

সুদৃষ্টি কামনা করি। সরেজমিন গিয়ে দেখাজায় চাপানীর হাট ব্র্যাক ও

গয়াবাড়ি ব্র্যাক শাখার আওতায় প্রোণ কমিউনিটি নামকরণ করে ৩৫ জন

শিক্ষার্থীদের নিয়ে বেশ কিছু স্কুল পরিচালিত হচ্ছে। সামাজিক দূরত্ব তো দূরের

কথা, ওরা জানেইনা করোনা ভাইরাস বলে কিছু আছে।এ ব্যাপারে কথা হয় স্কুল

পরিদর্শক চিত্র রন্জন রায়,সামসুল হক,শরিফুল ইসলাম এর সঙ্গে তিনি বলেন

আমাদের শিক্ষকরা প্রাইভেট পড়াচ্ছেন।শেণী শিক্ষকগন বলেন,প্রতি মাসেই তারা

আমাদের দ্বারা পড়াশুনা করে নিয়ে টাকা নিয়ে চলে যায়। বলতে গেলে চাকুরী থাকবে না বলে জানান।

 

আরো খবর.......

জনপ্রিয় সংবাদ

মনোহরদীতে নানা আয়োজনে বর্ষবরণ উৎসব পালিত হয়েছে

ডিমলায় সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও ব্রাক প্রোণ কমিউনিটির ব্যবসা জমজমাট

আপডেট টাইম : ১২:২৪:৩১ অপরাহ্ণ, সোমবার, ২৮ জুন ২০২১

ডিমলায় সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও ব্রাক

প্রোণ কমিউনিটির ব্যবসা জমজমাট

মাসুদ রানা সোহেল

ব্যুরো প্রধান

দেশ যখন কোভিট ১৯ কোরোনা ভাইরাসের সংক্রমণ এরাতে সরকার ঘোষিত দেশের

সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ। সরকারের ভাষ্যমতে কোমল মতি শিক্ষার্থীরা যেন বাড়ীর

বাহিরে না বেরায়, তাদের সুরক্ষা জন্য শিক্ষা ভাতার অর্থ মোবাইল ব্যাংকিং এর

মাধ্যমে পৌছে দিচ্ছেন। এমতাবস্তায় সরকারের বিধি নিষেধ কে বুড়ো আঙ্গুল

দেখিয়ে অভিভাবক কে ভুলভাল বুঝিয়ে ব্রাক প্রোণ কমিউনিটি স্কুলগুলো

প্রাইভেটের নাম করে জমজমাট ব্যাবসা করে হাতি নিচ্ছেন লাখ লাখ টাকা।

সমাজের লোকের প্রশ্ন একই দেশে দৈব আইন চলে কি করে।যদি চলে সব প্রতিষ্ঠান

চলবে,বন্ধ হলে সব বন্ধ হবে।বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষ

সুদৃষ্টি কামনা করি। সরেজমিন গিয়ে দেখাজায় চাপানীর হাট ব্র্যাক ও

গয়াবাড়ি ব্র্যাক শাখার আওতায় প্রোণ কমিউনিটি নামকরণ করে ৩৫ জন

শিক্ষার্থীদের নিয়ে বেশ কিছু স্কুল পরিচালিত হচ্ছে। সামাজিক দূরত্ব তো দূরের

কথা, ওরা জানেইনা করোনা ভাইরাস বলে কিছু আছে।এ ব্যাপারে কথা হয় স্কুল

পরিদর্শক চিত্র রন্জন রায়,সামসুল হক,শরিফুল ইসলাম এর সঙ্গে তিনি বলেন

আমাদের শিক্ষকরা প্রাইভেট পড়াচ্ছেন।শেণী শিক্ষকগন বলেন,প্রতি মাসেই তারা

আমাদের দ্বারা পড়াশুনা করে নিয়ে টাকা নিয়ে চলে যায়। বলতে গেলে চাকুরী থাকবে না বলে জানান।